বাড়িতে করণীয় 15 টি ক্রিয়াকলাপ করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের সময় আপনার বাচ্চাকে ব্যস্ত রাখার জন্য

বাড়িতে করণীয় 15 টি ক্রিয়াকলাপ করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের সময় আপনার বাচ্চাকে ব্যস্ত রাখার জন্য

যে সময় গোটা বিশ্ব তোলপাড় হয়ে উঠেছে কভিড-19 করোনা ভাইরাসে,তখন সব ধরনের সর্তকতা অবলম্বনের সাথে সাথে আপনার কাছে মূল বিবেচ্য হল আপনার পরিবারের সুরক্ষা যার মধ্যে অন্তর্ভূক্ত আপনার ছোট্ট ছোট্ট সন্তানদের বাড়ির মধ্যে রাখা।আপনার সন্তানদের সুরক্ষা এবং স্বাস্থ্য হল সবথেকে বেশি গুরুত্বপূর্ণ, বিশেষত এই ধরনের ভয়ঙ্কর সময় সেটা আমরা খুব ভালোভাবেই বুঝি।যাইহোক বিদ্যালয়গুলি এখন বন্ধ এবং ঘরে তারা আটকে পড়েছে, আমরা জানি প্রচুর পরিমাণ শক্তির ব্যবহার করতে হবে তাদের মানসিক সুস্থতা বজায় রাখার জন্য।আপনি যদি দুশ্চিন্তাগ্রস্ত হন যে কীভাবে আপনার সন্তানদের সুরক্ষিত এবং আনন্দিত রাখবেন আমরা এক্ষেত্রে আপনাকে সাহায্য করতে পারি টলটলায়মান শিশুদের থেকে শুরু করে স্কুল বা বিদ্যালয় গমনকারী শিশু পর্যন্ত প্রত্যেকের জন্যই। আমাদের কাছে আছে দারুণ সব মজাদার কার্যাবলীর এক অত্যশ্চর্য ধারণার সম্ভার।তাই স্বাচ্ছন্দ্যে থাকার জন্য আপনার সন্তানদের আরামদায়ক পোশাক পরান এবং শুরু করা যাক রোমাঞ্চকর অভিজ্ঞতা!

aniview

5 টি মজাদার ক্রিয়াকলাপ আপনার টলটলায়মানকারী শিশুদের জন্য

  1. স্টিকি স্পাইডারওয়েব

এটি একটি সহজ কিন্তু দারুণ মজাদার কাজ যেটি আপনার শিশুকে তার গ্রস মোটর স্কিলসের বা সমগ্র সঞ্চালন দক্ষতার অভ্যাস গড়ে তুলতে এবং হাত ও চোখের সংযোগের দক্ষতা বাড়াতে সাহায্য করবে।আপনাকে শুধু যেটি করতে হবে তা হল একটি দরজার উপর লম্বা লম্বা সেলোটেপের স্ট্রিপ কেটে লাগান একটি মাকড়সার জালের মতন।এবার পুরনো খবরের কাগজ গুলিকে ছোট ছোট বল বানিয়ে ছুড়তে শুরু করুন সেই ওয়েবের দিকে এবং দেখুন কার বল গুলি সেই ওয়েবে বা জালে গিয়ে আটকে যায়।

2. ময়দার দলা দিয়ে খেলা

ঘন্টার পর ঘন্টা আপনার সন্তানকে মজার মধ্যে আটকে রাখার একটা দারুণ বিষয় হল ময়দা দলা দিয়ে খেলা করা, এটা তৈরী করা খুব সহজ।5 কাপ সাধারণ ময়দা কিম্বা সব কাজে ব্যবহার করা যায় এরকম ময়দা নিন এবং এক কাপ বেবি অয়েল একটা বড় পাত্রে নিন।আপনার বাচ্চাকে হাঁটু মুড়ে বসে ওই পত্রের মধ্যে দুটি পদার্থকে আনন্দের সঙ্গে একসাথে চটকাতে দিন দেখবেন সে খুব মজা পাচ্ছে।নরম গঠনটি তার সংবেদনশীল হাতে খেলার পক্ষে আদর্শ।আপনি তাকে কয়েকটি ছাঁচ দিতে পারেন, এবং তাকে দেখিয়ে দিন কীভাবে ছাঁচ দিয়ে বিভিন্ন আকৃতির বস্তু বানানো যায়।

3.কার্ডবোর্ডের উপর জল রং

আপনি কি ভয় পাচ্ছেন যে সত্যিকারে রং যদি আপনি আপনার শিশুকে দিয়ে দেন তাহলে সে আপনার বাড়িটিকে ধ্বংস করে ফেলবে? আমরা এর জন্য একটি অসাধারণ সমাধান নিয়ে এসেছি-জল রং।একটি কার্ডবোর্ড কে টুকরো টুকরো করুন এবং সেটি আপনার ছোট্ট শিশুকে দিন একটি বাটিতে জল এবং একটি তুলির সাথে।আপনার শিশুর অন্তরে একজন শিল্পীর যে গুণ সুপ্ত অবস্থায় আছে সেটিকে উজ্জ্বলভাবে বেরিয়ে আসতে দিন।সেই টুকরো কার্ডবোর্ডগুলির তলায় কয়েকটি পুরনো খবরের কাগজ দিতে ভুলবেন না যাতে আপনার শিশু রং শুরু করার পর কোনো রকম গোলমাল অথবা দুর্ঘটনা ঘটিয়ে না ফেলে।

4. খেলনাগুলির জন্য আইস স্কেটিং

আপনার শিশু যেহেতু স্কেট করে বেড়াতে পারে না তাহলে কেন তার খেলনার জন্য আপনি বরফের মেঝে তৈরি করতে পারবেন না?একটি বেকিং ট্রেতে খানিকটা জল নিয়ে সেটিকে বরফ হতে দিন এবং যখন সেটি বরফ হয়ে যাবে তখন ছোট ছোট খেলনা গাড়ি বের করুন এবং দেখুন আপনার ছোট্ট শিশু কেমন ভাবে আনন্দে মেতে ওঠে বরফের উপর তার খেলনাগুলিকে চালনা করতে করতে।যখন বরফ  গলতে শুরু করবে তখন আপনি সেটিকে একটি কাঠের হাতা দিয়ে ভেঙ্গে ফেলবেন। এটা তাদের সজ্ঞাবহ ক্ষমতার বিকাশের জন্য দুর্দান্ত বিষয়!

5.খেলনা সাজানো

আপনার ঘরের চারিদিকে আপনার সন্তানের খেলনাগুলি ছড়ানো-ছিটানো অবস্থায় থাকাটি হল এমন একটি দারুণ খেলার বিষয়, যার মধ্যে দিয়ে আপনার সন্তান সেগুলিকে গুছিয়ে রাখবে এবং ব্যস্ত থাকবে।সমস্ত খেলনাগুলিকে এক জায়গায় আনুন এবং নানা রঙের কয়েকটি বাক্স বা ট্রে বা রঙিন কাগজ জোগাড় করে খেলনাগুলির সামনে রাখুন।এবার আপনি আপনার বাচ্চাকে বলুন তার খেলনাগুলিকে রং অনুযায়ী মিলিয়ে ঐ সকল ট্রের মধ্যে রাখতে যেমন নীল রঙের খেলনাগুলিকে নীল ট্রেতে, আর লাল খেলনার টুকরোগুলি লাল ট্রের মধ্যে রাখতে ইত্যাদি।এই সরল কার্যপ্রণালীটি তার মনোযোগকে কিছুক্ষণের জন্য আকর্ষণ করে রাখবে এবং সাথে সাথে আপনার ঘর পরিষ্কার করাটাও খুব সহজ হয়ে যাবে।তবে অবশ্যই খেলনাগুলি এবং কন্টেইনার বা ট্রেগুলিকে শিশু সুরক্ষিত জীবাণুনাশক দিয়ে জীবনুনাশ করে নেবেন।

 5 টি আনন্দদায়ক কার্যাবলী স্কুলে ভর্তি হয় নি এমন বা প্রাকবিদ্যালয়গামী শিশুদের জন্য

1. অক্ষর নিয়ে লুকোচুরি খেলা

আপনি কি ভেবে অবাক হচ্ছেন যে, কীভাবে আপনার প্রাক-বিদ্যালয়গামী শিশুটিকে তার বর্ণমালা চেনার বিষয়টি এবং সেটি ঝালিয়ে নেওয়ার ব্যাপারটি ব্যস্ত করে রাখবে? আমাদের কাছে আছে আপনাকে দেওয়ার জন্য সঠিক কার্যক্রমটি।একটি ঘরের মধ্যে বর্ণমালার অক্ষরগুলিকে একটি দেয়ালে নির্দিষ্ট ক্রমানুযায়ী সাঁটিয়ে দিন। এবার ঘরের আলো নিভিয়ে দিন।আপনার সন্তানের হাতে একটি ফ্লাসলাইট দিন দেখুন কীরকম ভাবে মজা শুরু হয়ে যায়।এবার আপনি তাকে বলুন অন্ধকার ঘরের দেওয়ালে অক্ষরগুলির উপর ফ্ল্যাশ লাইট জ্বালাতে একই রকম ভাবে আপনি তাকে নির্দিষ্ট একটি অক্ষর এর উপর আলো ফেলতে বলতে পারেন। এই কার্যক্রমটি ঘন্টার পর ঘন্টা তাকে আনন্দে রাখবে এ বিষয়ে আমরা নিশ্চিত।

2.হপ -স্কচ মজা

মনে করুন তো কীরকম মজা হত যখন আপনার ছেলেবেলায় হপ-স্কচ খেলাটি খেলতাম? আপনার সন্তানকে এই খেলাটিতে অন্তর্ভুক্ত করলে দেখবেন তার শক্তির একটি সুন্দর ব্যবহার হবে।আপনি আপনার ঘরের মেঝেতে অথবা আপনার বাড়ির বাইরের অংশ যেটি আপনার ব্যক্তিগত ব্যবহারের জন্য আছে সেখানে একটি চক এর সাহায্যে আপনি হপ-স্কচ এর ছক কাটতে পারেন অথবা আপনি রঙিন ফিতে ব্যবহার করতে পারেন।এই খেলাটি খেলতে গিয়ে আপনার সন্তানের ভালো পরিমাণ শক্তি ব্যয় হবে এবং এটি তাকে আনন্দে রাখবে এইভাবে এটি একটি দারুণ উপায়ে হয়ে উঠবে তাকে ঘরে আনন্দের সঙ্গে রাখার ক্ষেত্রে।

3. রঙিন কাগজের প্লেট এর সাথে লাফ দেওয়া

আপনার সন্তানের শক্তি ব্যয় করবার সাথে সাথে রঙ চেনানোর আরেকটি মজাদার উপায় হল এই খেলাটি।কয়েকটি রঙিন কাগজের প্লেটকে মাটিতে রেখে দিন এবং মজা করার জন্য প্রস্তুত হয়ে উঠুন।আপনি একটি করে রঙের নাম বলুন আর আপনার সন্তানকে বলুন সেই রঙিন প্লেটে উপর অন্য একটি প্লেট থেকে লাফিয়ে যেতে।এই সহজ খেলাটি হয়ত আপনার কাছে একটু লজ্জাজনক মনে হতে পারে কিন্তু আমরা আপনাকে এ ব্যাপারে নিশ্চিত করতে চাই যে আপনার বাচ্চা কিন্তু চারিদিকে লাফিয়ে বেড়াতে ভালোবাসবে।

4. বিন্দুগুলির সংযোজন

উপরে বলা এই ধরণের শক্তিরক্ষয়কারী লম্পঝম্প ক্রিয়াকলাপগুলি শেষ হওয়ার পর সামান্য স্বস্তিতে বসে আপনার বাচ্চাকে কিছু কাজকর্ম করাতে চান? এখানে এরকম একটি বিষয়ের কথা উল্লেখ করা হল যা আপনার সন্তানকে ব্যস্ত রাখবে আর সেই ফাঁকে আপনি এক কাপ কফি খেয়ে নিতে পারেন।এটি আপনার সন্তানের মনঃসংযোগ বৃদ্ধি করবে এবং এই খেলাটি তার কাছে খুবই আকর্ষণীয় হয়ে উঠবে।এটা করার জন্য আপনাকে একটি সাদা কাগজের উপর পাশাপাশি এবং লম্বালম্বিভাবে ৬টি খোপ বিশিষ্ট একটি ছক বিন্দু দ্বারা তৈরী করতে হবে।সেটি আপনার সন্তানকে দিন আর তার সাথে দিন কয়েকটি স্কেচ পেন এবং তাকে বলুন সেই বিন্দু গুলোকে সংযোগ করতে তার ইচ্ছে মত।তার নিজের মতো করে খেলতে সাহায্য করার পাশাপাশি পেন্সিল ধরার গ্রিপ যাতে ঠিক ভাবে হয় সেটিতেও এই খেলাটি সাহায্য করবে।

5.সাবানের ফেনা

এটি হল একটি দারুণ সংবেদনশীল খেলা বা কার্যক্রম যা আপনার সন্তানকে খুশি করবে এবং তার হাত পরিষ্কার রাখতে সাহায্য করবে।কিছুটা জলের মধ্যে সামান্য বাসনপত্র ধোয়ার লিকুইড সাবান বা হ্যান্ড-ওয়াশ ভাল করে মিশিয়ে নিন এটি মেশানোর ফলে প্রচুর পরিমাণ ফেনা উৎপন্ন হবে।এবার এই ফেনাগুলিকে একটি ট্রেতে আপনি ঢেলে দিন।লক্ষ্য করুন আপনার ছোট্টটির চোখগুলি কেমন চকচকে হয়ে ওঠে যখন সে ওই ফেনাগুলিকে নিয়ে তার দুহাতের মধ্যে চটকায়।তবে খুব সাবধান দেখবেন যেন তার চোখে সামান্যতম ফেনাও না লেগে যায়।

5 টি রোমাঞ্চকর কার্যাবলী বিদ্যালয় গমনকারী শিশুদের জন্য

1.বাড়িতে পড়ানোর জন্য  স্কলাস্টিক প্রকল্প

যে সকল বাচ্চারা বিদ্যালয়ে যায় তাদের অভিভাবকরা ভাবতেই পারেন যে তাদের সন্তানদের পড়াশোনা বুঝি স্তব্ধ হয়ে গেল যেহেতু বিদ্যালয় বন্ধ হয়ে আছে।যাইহোক, বিখ্যাত প্রকাশনা সংস্থা স্কলাস্টিক একটি অসাধারণ বিদ্যালয়ের পঠন পাঠন কর্মসূচি আনয়ন করেছে যার সাহায্যে আপনার সন্তানরা তাদের অবসর সময়ে পৃথিবীর বিভিন্ন বিষয় সম্বন্ধে জ্ঞান লাভ করবে।বিভিন্ন বয়সের শিক্ষার্থীদের কথা মাথায় রেখেই বিভিন্ন ধরনের কার্যক্রম তৈরী করেছে এই সংস্থাটি। আপনি আপনার ছোট্টটির জন্য যেটি সঠিক হবে সেই ধরণের একটি পাঠক্রম বেছে নিন এবং তাকে এর মধ্যে ব্যস্ত রাখুন এই কার্যক্রমটিতে দারুণ আনন্দদায়ক বিষয় ভিত্তিক ভিডিও এবং অ্যাক্টিভিটি আছে।

2.কিছু  স্লাইম তৈরী করুন

আপনার সন্তানদের দীর্ঘসময়ের একঘেয়েমি কাটাবার জন্য তাদের স্লাইম তৈরী করা শেখান।স্লাইম তৈরী করা খুবই সহজ এবং এটি আপনার বাচ্চাদেরকে অনেকক্ষণ ব্যস্ত রাখবে।একটা গামলাতে আধকাপ গ্লু বা আঠা নিন সাথে আধ কাপ জল যোগ করুন।যদি দেখেন মিশ্রণটি খুব পাতলা হয়ে যাচ্ছে তাহলে আপনি কম পরিমাণে জল ব্যবহার করতে পারেন।কিছু খাবারে যোগ করার রঙ এর মধ্যে দিয়ে দিন।এরপর এতে খানিকটা শেভিং ক্রিম যুক্ত করুন এবং ভালোভাবে মেশান।এতে কিছুটা পরিমাণ লোশন ব্যবহার করতে পারেন যেটি স্লাইমের স্ট্রেচনার হিসেবে কাজ করবে এবং   ধীরে ধীরে তাতে ডিটারজেন্ট যোগ করুন।এবার ভালোভাব পিষতে থাকুন -দেখবেন  স্লাইম তৈরী হয়ে গেছে।এটি আপনার সন্তানকে দিন অথবা তাকে সেটি তৈরী করতে সাহায্য করুন।অবশ্যই নিশ্চিত হয়ে নেবেন যেখানে বসে এটি আপনি করছিলেন সেখানটি যেন জীবাণুমুক্ত হয় এবং এটিকে একটি পরিষ্কার পাত্রে জমা করে রাখুন।

3.ক্রিপ পেপার বা কোঁকড়ানো কাগজের ধাঁধা

আপনার বাড়িতে হয়ে যাওয়া শেষ জন্মদিনের উৎসবে ব্যবহৃত ক্রিপ পেপার বা   কোঁকড়ানো কাগজগুলির মধ্যে যেগুলি এখনও এখানে সেখানে ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছে সে গুলিকে এক জায়গায় জড়ো করুন কারণ এগুলি ব্যবহারের সময় এখন হয়েছে।এই পেপারগুলিকে আপনার করিডোর কিংবা দরজায় যাওয়ার রাস্তায় পাজেলের ন্যায় আটকে দিন যাতে ধাঁধার মত লাগে, আর আপনার সন্তানকে বলুন তার ভেতর দিয়ে এঁকেবেঁকে চলতে।আপনি আপনার সন্তানের হাতে কিছু ক্রিপ পেপার এবং সেলোটেপ তুলে দিন আর তার নিজের মত করে ধাঁধাটিকে সাজাতে বলুন।

4.অ্যাক্টিভিটি বক্সেস

বাড়িতে বন্দী হয়ে থাকার সময় আপনার বাচ্চার আনন্দ ও উৎসাহের সাথে সময় কাটানোর জন্য এই অ্যাক্টিভিটি বক্সগুলি দুর্দান্ত!এগুলিতে সাধারণত 4-8 টি  অ্যাক্টিভিটি থাকে যেগুলি দিয়ে বাচ্চারা বার বার খেলতে পারে।আপনার বাচ্চার দক্ষতার বিকাশ এবং তা শাণ দেওয়ার সময়ও তাকে ব্যস্ত রাখার জন্য আমরা আপনাকে ফার্স্টক্রাই ইন্টেলিকিটের সুপারিশ করব!এটি একটি মাসিক সাবস্ক্রিপশন ভিত্তিক অ্যাক্টিভিটি বক্স কার্যক্রম, যাতে সব চমৎকার ডিজাইনের ক্রিয়াকলাপগুলি রয়েছে যা আপনার বাচ্চাকে মজা করার সাথেই অনেক কিছু শিখিয়ে তোলে। অনিশ্চিতকাল ব্যাপী সঙ্গ রোধ করে রাখার সময় আপনার বাচ্চার জন্য এটি দুর্দান্ত!

5.শিশুদের সাথে জেন্টাঙ্গেলস

নিরবতার সময় মানেই কিন্তু সর্বদা ক্লান্তিকর বা বিরক্তিকর নয়!আপনি আপনার বাচ্চাকে উৎসাহিত করতে পারেন এই ধরণের শৈল্পিক জেন্টাঙ্গেলসের মত সহজ এবং সাধারণ কিছু করার জন্য।এ ব্যাপারে আপনার যা করণীয় তা হল এক টুকরো কাগজের উপর আপনার হাতটিকে রেখে তা বরাবর আপনার করচিত্রখানি অঙ্কিত করুন এবং আপনার খুদেটিকে বলুন তার ভিতর তার মনের মত করে নক্সা গড়ে তুলতে।এই কার্যটিতে একটি প্রশমনকারী বা শান্ত প্রভাব রয়েছে যা বেশ কিছু সময়ের জন্য তার মনোযোগকে আঁকড়ে ধরে রাখবে।

বাড়ির ভিতরে আটক থাকার সময় আপনার বাচ্চাদের ব্যস্ত রাখার পরামর্শগুলি

  • একটি সময়সূচী গড়ে তুলুনঃ যখন বাড়ির ভিতর সকলেই বন্দী হয়ে থাকেন, তখন ব্যস্ত থাকাটা কঠিন হয়ে উঠতে পারে।সুতরাং সময়সূচী গড়ে তুলে তার সাথে সংলগ্ন থাকুন।আপনার বাচ্চার সাথে বিভিন্ন মজাদার ক্রিয়াকলাপে আপনার দিনটিকে পূর্ণ করে তুলুন এবং একটি পরিবার হিসেবে ভালো মানের কিছুটা সময় অতিবাহিত করুন।
  • পরিবারের সাথে সিনেমা দেখার রাতঃ বাড়ির অভ্যন্তরে ক্রিয়াকলাপগুলির সাথে আটকে থাকার সময় পরিবারের সাথে বসে একসাথে রাত্রে সিনেমা দেখার থেকে ভালো শব্দ আর কিছুই হতে পারে না।পুরানো কিছু ক্লাসিক এবং মন ভালো করে তোলার মত নতুন কিছু সিনেমা আপনার ছোট্ট ব্যক্তিটিকে খুশি রাখবে।
  • সহজ সরল রান্নার কিছু রেসিপি শেখানোর চেষ্টা করুনঃ আপনার 3/4 বছর বয়সী বাচ্চাদের হাতে-কলমে কিছু শিখিয়ে দক্ষ করে তোলার এটিই যথার্থ সময়।সহজ কিছু রেসিপি শেখানোর চেষ্টা করতে পারেন, যার মধ্যে অন্তর্ভূক্ত রাখতে পারেন বাড়িতে তৈরী কুকিজ এবং সুস্বাদু কিছু জলখাবারও।
  • একটি(বা তারও বেশি)বই পড়ানোর অভ্যাস গড়ে তুলুনঃ শুধুমাত্র একটি ভাল বই পড়ে একটি দিন কাটানোর স্বপ্ন আমরা সকলে এক সময় কে না দেখেছি। সেই সুযোগ এখন আপনার হাতের মুঠোয়।হতে পারে আপনার ছোট শিশুটি তার পুরো দিনটিকে কোনও বই পড়ে কাটাতে চাইবে না,কিন্তু আপনি এই সুযোগটিকে কাজে লাগাতে পারেন তাদের মধ্যে বই পড়ার একটা সুঅভ্যাস গড়ে তোলার জন্য।
  • বালিশের লড়াইঃ তাদের সকল উৎসাহ আনন্দকে কাজে লাগানোর এটি একটি ভাল উপায় এবং একটা বালিশের ভাল লড়াইয়ের সাথে পারিবারিক আনন্দ উপভোগ করুন।আমরা কথা দিচ্ছি এই খেলার মধ্য দিয়ে আপনাদের সকলের মধ্যে প্রচুর হাসির উদ্রেক হবেই।

এইরকম একটা সময়ে আপনার পরিবারের স্বাস্থ্যের ব্যাপারে উদ্বিগ্ন না হওয়াটা যেমন অস্বাভাবিক, ঠিক তেমনই এ ব্যাপারে যথাযথ যুক্তিযুক্ত হওয়া এবং প্রয়োজনীয় সাবধানতা অবলম্বন করাটাও জরুরী।বাড়িতে থাকুন, বিশেষত যদি আপনার ছোট বাচ্চা থাকে কিম্বা পরিবারে বৃদ্ধ বা বৃদ্ধা থেকে থাকেন সেক্ষেত্রে তাদের সুরক্ষিত এবং স্বাস্থ্যকর রাখাটাও খুবই গুরুত্বপূর্ণ।আর যেহেতু পুরো পরিবারই এখন বাড়ির মধ্যে রয়েছেন, তাই এই সময়টাকে সবাই মিলে একসাথে একটা ভাল সময় কাটানোর জন্য কাজে লাগাতে পারেন এবং এভাবে আপনাদের পারিবারিক বন্ধনটিকে আরও অটুট করে তুলুন। সুতরাং ঘরের ভিতরেই করার মত মজাদার কিছু কাজকর্মের জন্য প্রস্তুত হন এবং তার সাথেই আপনাদের হাতগুলি বারে বারে ধোয়ার কথাটি যেন একদম ভুলবেন না!