আপনার শিশুকে স্নান করানো – পদ্ধতি, টিপস এবং আরো অনেক কিছু

আপনার শিশুকে স্নান করানো - পদ্ধতি, টিপস এবং আরো অনেক কিছু

একটি শিশুর খুব নরম, কোমল ত্বক থাকে, যা বহিরাগত দূষণকারী এবং বহিরাগত ব্যাকটেরিয়ায় সংবেদনশীল । বহিরাগত ব্যাকটেরিয়া বায়ু, খাবার বা এমনকি পণ্য যা শিশুর ভেজা ওয়াইপ বা সাবান এবং ময়শ্চারাইজারের মতো কিছু পন্য, যা আমরা শিশুর জন্য ব্যবহার করি, তাতে থাকতে পারে । শিশুর সাজসজ্জার পন্যগুলির মূল উপাদানগুলো বোঝা অতীব গুরুত্বপূর্ণ, বিশেষ করে যখন সাবান, অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল ওয়াইপস এবং শ্যাম্পুর মতো স্বাস্থ্যকর পণ্যগুলির ক্ষেত্রে ।

aniview

আপনার শিশুকে স্নান করানোর গুরুত্ব

একটি শিশুকে স্নান করানো শুরু করার আগে, এটির গুরুত্ব বুঝতে হয় । একটি শিশুর অত্যন্ত দুর্বল রোগপ্রতিরোধ প্রক্রিয়া থাকে । এর মানে হল, শিশুর ত্বক খুব সংবেদনশীল এবং এর মধ্যে আপনার শিশুর উপর ধীরে ধীরে জমা হওয়া অধিকাংশ জীবাণুগুলির বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য অ্যান্টিবডি নেই । স্নান করা ত্বকের উপরে অস্বাস্থ্যকর ব্যাকটেরিয়া শুধু সরিয়ে দেয় তাই নয়, ত্বকের ছিদ্র বা রোমকূপের উপর জমা আস্তরণকে তুলে ফেলে, যাতে শিশুর ভিতরে অশুদ্ধিগুলি ঘামের সঙ্গে বেরিয়ে যায় । শিশুর ত্বকে ঘা, খোস, র‍্যাস বা ফুসকুড়ি থাকলে, তা পরীক্ষা করার জন্য এটি বাবা-মায়ের কাছে একটি সুযোগ ।

মনে রাখবেন যে, একটি শিশুর ত্বক খুব নরম হয়; প্রাপ্তবয়স্ক ত্বকের পণ্য থেকে শিশুর ক্ষতি হতে পারে । আমরা ত্বককে নরম এবং পুষ্টিকর রাখতে বিশেষভাবে তৈরি শিশুর পণ্যগুলি দিয়ে আপনার শিশুকে স্নান করানোর পরামর্শ দিই ।

কত ঘন ঘন আপনার শিশুকে স্নান করানো উচিত?

বেশিরভাগ বাবা-মা শিশুকে হাসপাতালের বাইরে বের করার দিন থেকেই প্রতিদিন শিশুকে স্নান করানোর অভ্যাস তৈরি করে । এটি অপ্রয়োজনীয় । প্রতিরক্ষামূলক পরিবেশে রাখা একটি নবজাতক শিশু খুব অল্প বিষাক্ত পদার্থের সংস্পর্শে আসে । সে এখনো কঠিন খাবার খাওয়া শুরু করেনি বা নিয়মিত তাকী অপরিষ্কার পৃষ্ঠতলে উন্মুক্ত করা হয় না । তাই একটি নবজাতক শিশুকে সপ্তাহে শুধুমাত্র তিনবার স্নান করানোর সুপারিশ করা হয় ।

একবার শিশু কঠিন খাবার খেতে শুরু করলে এবং হামাগুড়ি দিতে শুরু করলে, আপনি ধীরে ধীরে এক মাস ধরে সপ্তাহে আরও কয়েকবার বেশি স্নান করাতে পারেন । একটি শিশু, যে হামাগুড়ি দেয় এবং কঠিন খাবার খায়, জীবাণুর সঙ্গে লড়াই করার জন্য তাকে প্রতিদিন স্নান করানো উচিত । আপনি নিয়মিত স্নান সেশন তৈরি করবেন কিনা তা নিশ্চিত করুন, কারণ এটি শিশুদের ত্বককে স্নানের পুনরাবৃত্তির সাথে মানিয়ে নিতে সাহায্য করে ।

কোথায় আপনি আপনার শিশুকে স্নান করাবেন?

আপনার শিশুর স্নানের জন্য সঠিক স্থান খুবই গুরুত্বপূর্ণ । মনে রাখবেন যে, আপনার শিশুর রোগপ্রতিরোধ প্রক্রিয়া খুবই দুর্বল । আপনি যদি ঠান্ডা এলাকায় বাস করেন, আপনার শোবার ঘরে বা অন্য কোন ঘরে যা বেশ গরম, সেখানে একটি টাবে আপনার শিশুকে স্নান করান । আপনি যদি গরম অঞ্চলে থাকেন, তবে ঘরের তাপমাত্রা পরীক্ষা করার কথা মনে রাখবেন । স্নানের স্থান স্নান করানোর ধরনের উপর ব্যাপকভাবে নির্ভর করে ।

আপনি যদি আপনার শোবার ঘরে শিশুকে স্নান করাচ্ছেন, তাহলে নিশ্চিত করে আপনি আগেই ঘর গরম করে রাখুন । আপনি স্নান করানোর আগে টাবের নিচে পিছল প্রতিরোধী একটি মাদুর রাখুন । স্নান শরীরের তাপমাত্রা বজায় রাখার ক্ষেত্রে একটি ভূমিকা পালন করে; ঠান্ডা অঞ্চলে বসবাস করলে আপনার শিশুকে সামান্য উষ্ণ জলে স্নান করানোর চেষ্টা করুন এবং আবহাওয়া গরম হলে জল ঠান্ডা রাখার চেষ্টা করুন ।

খুব বেশি বা কম তাপমাত্রায় শিশুকে স্নান করাবেন না । মনে রাখবেন যে, যেটা আপনার জন্য হালকা গরম, তা আপনার শিশুর জন্য বেশি গরম হয়ে যায়, এবং আপনার কাছে যা হালকা শীতল মনে হচ্ছে, তা শিশুর সংবেদনশীল ত্বকের কারণে তার জন্য অত্যাধিক ঠান্ডা হতে পারে । আবহাওয়া এবং শিশুর প্রয়োজনীয়তা অনুযায়ী তাপমাত্রার সামঞ্জস্য করুন ।

আপনার শিশুর স্নানের সময় কখন নির্ধারণ করা উচিত

শিশুদের স্নানের মতোই স্নান করানোর সঠিক সময়ও সমান গুরুত্বপূর্ণ । স্নানের সময়সূচীর কিছু সাধারণ নিয়ম হল:

  • যদি তারা ক্ষুধার্ত হয়, তাহলে তাদের স্নান করাবেন না ।
  • যদি তাদের জ্বর থাকে, তবে তাদের স্নান করাবেন না ।
  • যদি তাদের ত্বকের সমস্যা থাকে, তবে আপনি তাদের স্নান করানোর আগে ডাক্তারের সাথে পরামর্শ করুন ।

এইগুলি ছাড়াও, শিশুর জন্য স্নানের সময় নির্ধারণ করার সময় এখানে দেওয়া কয়েকটি বিষয় বিবেচনা করতে হয়:

শিশুর স্নানের সময়কে মজাদার করে তুলুন

  • সন্ধ্যায় স্নান আপনার শিশুর ঘুমের সময় প্রস্তুত করার জন্য একটি মজার এবং শান্তিদায়ক উপায় হতে পারে । এটি আপনাকে সারাদিনের ব্যাকটেরিয়া পরিষ্কার করতে সাহায্য করবে ।
  • ভোরবেলায় স্নান করানো একজন কর্মজীবী বাবামায়ের ভালো বন্ধু হতে পারে । এই কাজ শিশুকে স্নান করানোর সময় তার সঙ্গে অভিভাবকের বন্ধন আরও মজবুত করার অনুমতি দেয় এবং শিশুকে এনার্জিতে ভরে তোলে ।
  • দিনের তাপমাত্রা চরমে পৌঁছলে শিশুর শরীরের তাপ ঠাণ্ডা করার জন্য দুপুরে স্নান করানো খুব ভালো ।
  • সন্ধ্যার পরে শিশুকে স্নান না করানোর সুপারিশ করা হয়, কারণ এটি অসুস্থতার দিকে সংবেদনশীল করে দিতে পারে ।

এই সব কথা মনেরেখে, আপনারএবংতারপ্রয়োজনীয়তারউপরভিত্তিকরেআপনারশিশুরস্নানেরসময়নির্ধারণকরুন ।

কোন ধরণের ক্লিঞ্জার বা সাবান আপনার ব্যবহার করা উচিত?

সাবান বাছাই করার সময় বিবেচনা করার সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দিক হল পিএইচ ব্যালেন্স

সাবান বাছাই করার সময় বিবেচনা করার সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দিক হল পিএইচ ব্যালেন্স । সামান্য এসিডিক বা নিরপেক্ষ পিএইচ ভারসাম্য ভিত্তিক তরল সাবানগুলি সর্বোত্তম বলে বিবেচিত হয়, কারণ এগুলি শিশুর কমনীয় ত্বককে ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা করার জন্য প্রতিরোধের প্রাচীর গড়ে তোলে, যা ত্বকের আদ্রতাকে ধরে রাখে । অ্যালক্যালাইন সাবান, যা প্রাপ্তবয়স্করা ব্যবহার করে, তা শিশুর ত্বকের জন্য খুব কঠিন বলে মনে করা হয় এবং ত্বক শুকিয়ে যায় ও র‍্যাস সৃষ্টি করে ।

আপনার শিশুর ত্বকের স্বাস্থ্য বজায় রাখতে সহায়তা করে এমন শিশুর কাছে বন্ধুত্বপূর্ণ ময়শ্চারাইজারগুলির মতো স্নানের তরল সাবান ব্যবহার করারও সুপারিশ করা হয় । এটি আপনার শিশুর স্নানের প্রয়োজনীয়তাগুলি বোঝার জন্য শিশুরোগ বিশেষজ্ঞের সাথে পরামর্শ করতে পারেন ।

শিশুর স্নানের বিভিন্ন ধরণ

এখানে আপনার শিশুকে স্নান করানোর বিভিন্ন উপায় রয়েছে । এর মধ্যে নিম্নলিখিতগুলি অন্তর্ভুক্ত:

একটি স্নানের সিট বা বাথার ব্যবহার করা

একটি জালযুক্ত বাথর বা স্নান করার সিট ব্যবহার করতে পারেন

আপনার সন্তানকে ভালোভাবে চেপে ধরে এমন জিনিস ব্যবহার করাই সবচেয়ে ভালো হবে । আপনি একটি জালযুক্ত বাথর বা স্নান করার সিট ব্যবহার করতে পারেন । এই বাচ্চাটিকে সামান্য উঁচুতে রাখে, যাতে সে নিজের স্নানের জলে বসে থাকতে পারে । এটি শিশুর উপর একটি কোনে জল প্রবাহ দেওয়ার কাজ করে, তারপর সেই জল আস্তে আস্তে নীচের দিকে প্রবাহিত হয় এবং বেরিয়ে যায় ।

ঐতিহ্যগত স্নান

এটি সম্ভবত আপনার শিশুর জন্য সবচেয়ে আরামদায়ক । এটি তাকে নিরাপত্তার বিষয়ে নিশ্চিত করে দেয়, কারণ এই ধরণের স্নান করানোর জন্য আপনাকে বাথরুমের মেঝেতে বসতে হয় এবং তাকে আপনার দিকে তার পিঠ করে আপনার পায়ে শোয়ানো হয়, তার পা ছড়িয়ে রেখে এবং আস্তে আস্তে তার উপর জল ছিটিয়ে দেওয়া হয় । এটির একটি অসুবিধাও আছে, কারণ আপনিও ভিজে যাবেন এবং সাবান লেগে যাবে ।

একটি টাবে স্নান

টাবে স্নান করানো সম্ভবত শিশুকে স্নান করানোর সবচেয়ে মজার উপায়

একটি টাবে স্নান করানো সম্ভবত আপনার শিশুকে স্নান করানোর জন্য সবচেয়ে মজার উপায় । এটি বাবামায়ের এবং শিশুর জন্য বন্ধনেরর একটি আশ্চর্যজনক অভিজ্ঞতাও হতে পারে ।

একটি বাথটাবে আপনার শিশুকে কিভাবে স্নান করাবেন

  • সহজে পাওয়ার জন্য হাতের কাছেই সব স্নানের জিনিপত্র রাখুন, যাতে আপনি নিশ্চিতভাবে এক হাত সবসময় শিশুর উপর রাখতে পারেন ।
  • গরম জল দিয়ে টাবটি ভরে দিন । ৩০ সেকেন্ডের বেশি সময় ধরে যদি ৩২ ডিগ্রির বেশি তাপমাত্রা রাখা হয়, তাহলে শিশুর বড় বড় পোড়া দাগ বা ফোসকা হতে পারে ।
  • শিশুকে টাবের কাছে আনুন, তার সম্পূর্ণ পোশাক ছাড়িয়ে দিন । আস্তে আস্তে হাত দিয়ে তাকে ধরে টাবের মধ্যে প্রথমে তার পায়ের পাতা রাখুন ।
  • ধীরে ধীরে তার উপর সাবান বোলান, প্রথমে এটি হালকাভাবে ব্যবহার করুন । ধুয়ে ফেলার জন্য একটি কাপ বা হ্যান্ড-শাওয়ার ব্যবহার করুন ।
  • আস্তে আস্তে তাকে মুছে শুকিয়ে নিন, একটি তোয়ালে দিয়ে তাকে মুড়িয়ে নিন । তোয়ালেতে একটি গোটানো অংশের মতো একটি হুড থাকে তা নিশ্চিত করুন, এটি তার কান এবং মাথা উষ্ণ রাখবে ।

একটি বাথটাবের মধ্যে গ্রহণ করা উচিত এমন কিছু নিরাপত্তা ব্যবস্থা

আপনার সন্তানের নিরাপত্তার জন্য এই ব্যবস্থাগুলি গ্রহণ করা জরুরিঃ

  • আপনি সবসময় নিশ্চিত করুন যে, একটি হাত শিশুর চারপাশে থাকে ।
  • দুইবার করে তাপমাত্রা পরীক্ষা করুন । ৩২ ডিগ্রি সেলসিয়াসের চেয়ে বেশি তাপযুক্ত জলের মধ্যে শিশুর রাখলে তার শরিরে মারাত্মক পোড়ার প্রভাব পরতে পারে ।
  • অতিরিক্ত সাবান ব্যবহার করবেন না । এটি তার ত্বককে শুষ্ক করে দিতে পারে এবং দাগ হতে পারে ।
  • ৫ মিনিটেরও বেশি সময় ধরে তাকে স্নান করবেন না । একটি অতিরিক্ত সময় ধরে স্নান করালে তা শিশুকে ক্লান্ত করতে পারে ।
  • স্নান করানোর সময় সেই ঘর থেকে বেরুবেন না বা শিশুর উপর থেকে কখনোই নিজের মনোযোগ সরাবেন না ।

একটি স্পঞ্জ স্নান

প্রথম কয়েক সপ্তাহে, আপনার শিশুকে একটি স্পঞ্জ স্নান দেওয়া সহজ হতে পারে । এই আপনার শিশুকে একটি উষ্ণ এবং আর্দ্র স্পঞ্জ বা তুলোর উল ব্যবহার করে আপনার শিশুকে মোছার মাধ্যমে করা হয় । এই প্রক্রিয়া চলাকালীন আপনার কিছু জিনিস মনে রাখা দরকার ।

  • ঘর যেন উষ্ণ থাকে এবং টাব যেন উষ্ণ জল দিয়ে ভর্তি থাকে তা নিশ্চিত করুন ।
  • শিশুর নিচে একটি শুকনো তোয়ালে রাখুন যাতে আপনি স্নানের পরে অবিলম্বে শিশুকে শুকিয়ে নিতে পারেন ।
  • ধীরে ধীরে শিশুর চোখ মোছার মাধ্যমে শুরু করুন ।
  • কানের ভেতরে বেশি গভীরে পরিষ্কার করবেন না, কারণে এতে শিশুর কানের পর্দার ক্ষতি হতে পারে । পরিবর্তে, যত্নের সঙ্গে কান এবং কান পিছনে পরিষ্কার করুন ।
  • আপনার সন্তানের ত্বকের সুরক্ষা নিশ্চিত করার জন্য সর্বদা একটি নবজাতকের জন্য প্রস্তুত করা ওয়াইপস এবং ক্লিনার্স ব্যবহার করুন ।
  • একবার আপনি ধোয়া শেষ করে ফেললে, শিশুকে সাবধানে হাল্কা চাপড় দিয়ে শুকিয়ে নিন, শরীরের ভাঁজগুলিতে মনোযোগ দিতে হবে । আপনি ত্বকে একটি হালকা ময়শ্চারাইজার ব্যবহার করতে পারেন বা শিশুর উষ্ণ রাখতে মুড়িয়ে রাখুন ।

আপনার শিশুর স্নানের জন্য আপনার কি কি প্রয়োজন

আপনার শিশুর স্নানের জন্য আপনার যা প্রয়োজন তা এখানে রয়েছেঃ

আপনার শিশুর স্নানের জন্য আপনার যা প্রয়োজন

  • আপনার একটি উপযুক্ত আকারের টাব প্রয়োজন হবে । এটির যেন কোন ধারালো প্রান্ত না থাকে, তার জন্য প্লাস্টিক ব্যবহার করুন ।
  • বিশেষ করে শিশুদের জন্য তৈরি একটি হালকা ক্লিঞ্জার ব্যবহার করুন ।
  • নরম স্পঞ্জ দিয়ে জল সরিয়ে দিন ।
  • আপনার শিশুর চোখ পরিষ্কার করতে সাধারণ তুলোর প্যাড ব্যবহার করুন ।
  • নরম তোয়ালে দিয়ে আপনার শিশুকে হালকা করে মুছে নিন ।

কখন এবং কিভাবে একটি শিশুর মুখ ধোয়াতে হবে

শিশুকে স্নান করানোর আগে আপনার শিশুর মুখ ধুয়ে নিন । উষ্ণ জলে একটি স্পঞ্জ বা তুলোর উল ডুবিয়ে নিন এবং আস্তে আস্তে মুখ মুছে ফেলুন । শিশুর ত্বকের জন্য জল যেন খুব গরম না হয় তা নিশ্চিত করুন । আস্তে আস্তে তার চোখ মুছে দিন । এছাড়াও, শিশুর কান এবং কানের বাইরের অংশটি মুছে ফেলুন । কানের খোল পরিষ্কার করার জন্য আপনার আঙুল বা তুলো ব্যবহার করবেন না, কারণ এটি কানের পর্দায় বাধা হতে পারে বা ক্ষতি করতে পারে । চোখ বা নাকের কাছাকাছি কোন শুকনো শ্লেষ্মা ধুয়ে ফেলার আগে এটি নরম করতে ভেজা তুলোর উল দিয়ে ভেজান ।

শিশুর মুখ পরিষ্কার করার জন্য আপনার কোন সাবান বা ক্লিঞ্জারের দরকার নেই ।

শিশুর স্নানের পদ্ধতি – শিশুর স্নানের প্রক্রিয়া সহজ করতে পদক্ষেপ যা অনুসরণ করতে হবেঃ

সঠিকভাবে একটি শিশুকে স্নান যেভাবে করাতে হয়:

  • টাবে কয়েক ইঞ্চি উষ্ণ জল পূর্ণ করুন । আপনার যদি থার্মোমিটার থাকে তবে আপনি এটি নিশ্চিত করতে পারেন যে, জল যেন ৯০ থেকে ১০০ ডিগ্রী ফারেনহাইটের মধ্যে থাকে । আপনার কব্জি ভিতরের দিকের অংশ দিয়ে তাপমাত্রা পরীক্ষা করুন ।
  • আপনার শিশুর মাথা ও ঘাড় ভালোভাবে করুন এবং আস্তে আস্তে তাকে টাবের মধ্যে রাখুন । এক হাত দিয়ে তাকে সবসময় ধরে রাখুন ।

এক হাত দিয়ে তাকে সবসময় ধরে রাখুন

  • আপনার শিশুর চোখ পরিষ্কার করার জন্য তুলোর প্যাড ব্যবহার করুন । জলে ডুবিয়ে তাদের নরম করে এবং আস্তে বাহিরের দিক মুছুন । এক একটি চোখের জন্য একটি করে প্যাড ব্যবহার করুন । তার মুখ, নাক, ঘাড় এবং কান পরিষ্কার করার জন্য নরম স্পঞ্জ ব্যবহার করুন ।
  • শিশুদের জন্য তৈরি একটি মৃদু ক্লিঞ্জার ব্যবহার করুন এবং স্পঞ্জ দিয়ে শরীরের বাকি অংশ আস্তে আস্তে পরিষ্কার করুন ।
  • সামনে থেকে পিছন দিকে ডায়পারের এলাকা ধুয়ে নিন । আপনার ছেলে শিশুর লিঙ্গের ত্বক টানবেন না ।
  • সব শিশুই জলের মধ্যে থাকতে ভালবাসে । সে যেন গরম থাকে, তার জন্য তার শরীরের উপর গরম জল অনবরত ঢালতে থাকুন ।
  • তার মাথা এবং ঘাড় ভালোভাবে ধরে শিশুকে আস্তে আস্তে টাব থেকে সরিয়ে আনুন এবং দ্রুত একটি তোয়ালে দিয়ে তাকে মোড়ান ।
  • আপনার শিশুর ত্বককে ভালোভাবে পরিষ্কার করতে একটি নরম তোয়ালে ব্যবহার করুন । সব ভাঁজগুলি পরিষ্কার করতে এবং সবসময় শুকিয়ে নিতে ভুলবেন না ।
  • আর্দ্রতা ধরে রাখতে একটি শিশুর ময়শ্চারাইজার ব্যবহার করুন । আপনার শিশুর ত্বক কমনীয় এবং তাড়াতাড়ি শুকিয়ে যায় ।

শিশুর নিরাপদ স্নানের জন্য সতর্কতা

  • কখনই আপনার শিশুকে জলের মধ্যে ছেড়ে রাখবেন না, এমনকি এক সেকেন্ডের জন্যও না । যদি আপনাকে জরুরী কিছু করতে হয়, আপনার শিশুকে জল থেকে সরিয়ে দিন এবং তাকে সাথে নিয়ে যান ।
  • আপনার শিশুটি যখন টাবে থাকে, তখন জল যেন পড়তে না থাকে । তাপমাত্রার পরিবর্তন হঠাৎ এবং অপ্রত্যাশিত হতে পারে ।
  • আপনার ওয়াটার হিটারের তাপমাত্রা ১২০ ডিগ্রী ফারেনহাইটের কম রাখুন ।

শিশুর স্নানের কিছু গুরুত্বপূর্ণ টিপস

  • আপনার শিশুর বেশিরভাগ সময় গরম স্নানের পরে ঘুমিয়ে পড়বে । আপনি তার স্নানের সময় নির্ধারণ করার সময় এই কথা মনে রাখবেন ।
  • আপনি যা দেখতে পান, তাই পরিষ্কার করুন, কানের ভিতরের অংশ বা নাকের ভিতরে পরিষ্কার করার চেষ্টা করবেন না ।
  • আপনি যেখানে আপনার শিশুর স্নান করাবেন, সেখানে একটি পিছল রোধী মাদুর রাখুন । এটি যে কোন দুর্ঘটনা প্রতিরোধ করবে ।
  • আপনার শিশুর জলকে একা ছেড়ে যাবেন না ।

উপসংহার: আপনার শিশুকে স্নান করানোর আগে আপনার শিশুর প্রয়োজনীয়তাগুলি বোঝা খুব জরুরি, আমরা শিশুর স্নান করার সময় বিশেষভাবে পরিকল্পিত শিশুর স্বাস্থ্যবিধি পণ্যগুলির সুপারিশ করি । আপনার সন্তানের যত্ন নেওয়ার সময় ক্ষত, ফোস্কা বা র‍্যাসের জন্য নজর রাখা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ, যদি আপনি যদি এমন কিছু লক্ষ্য করেন, তাড়াতাড়ি আপনি একজন বিশেষজ্ঞের সাথে পরামর্শ করুন । স্নান করানোর সময় জৈব বা অরগানিক সাবান ও শ্যাম্পু ব্যবহার করার চেষ্টা করুন এবং সাধারণ ব্যবহারের জন্য জৈব ময়শ্চারাইজার এবং ওয়াইপস ব্যবহার করুন ।