শিশুদের জন্য আম- স্বাস্থ্য উপকারিতা এবং সুস্বাদু রেসিপিগুলি

শিশুদের জন্য আম- স্বাস্থ্য উপকারিতা এবং সুস্বাদু রেসিপিগুলি

আম সকলেরই প্রিয়, তা সে বাচ্চা হোক কিম্বা বড়।গ্রীষ্মের দাবদহ থেকে কিছুটা স্বস্তি পাওয়ার একটি দিশা হল এই সরস ও রসাল আম যা প্রাপ্তবয়স্ক এবং শিশু সকলেরই পছন্দের একটি জিনিস।এই ফলটি শুধু শরীরকে হাইড্রেটই রাখে না, এর চমৎকার স্বাদটির মধ্যে আছে এমন এক ক্ষমতা যা স্বাদকোরককেও তৃপ্ত করে।এছাড়াও আবার আমের সাথে যুক্ত এর স্বাস্থ্য উপকারিতাগুলিকেও অস্বীকার করা যেতে পারে না।তা সে আপনি এটিকে এমনই ভক্ষণ করুন কিম্বা ম্যাঙ্গো শেক হিসেবেই গ্রহণ করু, যেভাবেই খান না কেন, এর স্বাদ অতুলনীয়।

aniview

শিশুদের জন্য আমের উপকারিতাগুলি

আম বাচ্চাদের জন্য কি ভাল? এর উত্তর হল হ্যাঁ।এটি হল নানাবিধ পুষ্টিকর উপাদান, খনিজ এবং ভিটামিনে ভরপুর একটি শক্তিঘর।তার উপর আবার, এর মধ্যে রয়েছে অ্যান্টিঅক্সিডেন্টের বৈশিষ্ট্যাবলী যা এটিকে গ্রীষ্মে খাওয়ার জন্য সেরা পছন্দ করে তুলেছে।এর আরও উপকারিতাগুলির ব্যাপারে একটি সূক্ষ্ম অন্তর্দৃষ্টি পেতে পাঠ করতে থাকুন।

1.দৃষ্টিশক্তি বৃদ্ধি করে

বাচ্চারা একটি বিকাশের পর্যায়ে থাকার কারণে, যাতে তাদের দৃষ্টিশক্তিটিও বৃদ্ধি পায়, তার উপযোগী সেরকম ধরণের খাবার তাদের দেওয়া খুবই প্রয়োজন হয়ে ওঠে, আর তার জন্য রসালো আমের থেকে ভাল আর কি হতে পারে?খাবার ব্যাপারে বাচ্চাদের মধ্যে অনেক বাছবিচার থাকতে পারে এবং তারা শাকসবজিগুলি খেতে না চাইতে পারে, কিন্তু তারা কখনই আম খাওয়ার ব্যাপারে না করবে না, যা ভিটামিন A সমৃদ্ধ একটি ফল।ভিটামিন A-এর এই উৎসটি এইভাবে রাতকানা প্রতিহত করতে, কর্নিয়াকে কোমল রাখতে এবং চোখের শুষ্কতাকে হ্রাস করতে সহায়তা করতে পারে।

2.স্মৃতিশক্তিকে তীক্ষ্ণ করে তোলে

আম গ্লুটামিন অ্যাসিডে সমৃদ্ধ যা একটি স্মৃতিবর্ধক হিসেবে কাজ করেযখন আপনি আপনার বাচ্চার দৈনন্দিন খাদ্যের সাথে আম যোগ করবেন, আপনি নিশ্চিত থাকুন যে, তারা বেশ সক্রিয় থাকবে এবং তারা শিখন কৌশলটিকে দ্রুত রপ্ত করে স্মৃতিতে ধরে রাখতে পারবে।

3.ত্বকের স্বাস্থ্যের উন্নতি ঘটায়

সকল মাবাবারাই চান যে তাদের সন্তানের ত্বক কোমল ও মসৃণ হোক।কিন্তু এর পিছনে থাকা গোপন ব্যাপারটি হল এর জন্য আপনার বাচ্চার ত্বককে হাইড্রেট রাখতে হবে।আম খাওয়ালে তা আপনার সন্তানের ত্বককে রাখে স্বাস্থ্যকর এবং উজ্জ্বল।ত্বকের উপর আমের শাঁস ব্যবহার করলে তা আবার অবরুদ্ধ লোমকূপগুলিকে মুক্ত করতেও সহায়তা করে।

4.রক্তাল্পতা বা অ্যানিমিয়ার সম্ভাবনা হ্রাস করে

প্রকৃতপক্ষে এটি একটি উল্লেখযোগ্য বিষয় যে, আম আয়রণ সমৃদ্ধ একটি ফল, আর আয়রণ হল একটি অত্যন্ত প্রয়োজনীয় খনিজ যা লোহিত রক্ত কণিকা উৎপাদন বৃদ্ধিতে সহায়তা করে।সুতরাং, আপনার বাচ্চাকে আম পরিবেশন করলে তা তার মধ্যে অ্যানিমিয়া বা রক্তাল্পতা, যেখানে রক্তের উপযুক্ত সংখ্যক লোহিত রক্ত কণিকার ঘাটতি দেখা দেয়, তা হওয়ার সম্ভাবনা হ্রাস করতে পারে।

5.স্বাস্থ্যকর ওজন বৃদ্ধি করে

স্বাস্থ্যকর ওজন বৃদ্ধি করে

স্বাস্থ্যকর ওজন লাভ করার জন্য বাচ্চাদের প্রয়োজন সঠিক পরিমাণে পুষ্টি এবং ভিটামিন গ্রহণ করা।আপনার বাচ্চা যদি ঠিকমত ওজন লাভ না করে, আপনি তার ডায়েটে আম যোগ করতে পারেন।আপনি আবার তাকে নিয়মিত ম্যাঙ্গো শেকও দিতে পারেন, এর স্বাদ বেশ ভাল এবং তাছাড়াও এটি আবার বাচ্চাদের শক্তিশালী এবং স্বাস্থ্যকর করে তুলতেও সহায়তা করে।

6.হজমশক্তি উন্নত করে

আমগুলি হজমকারী উৎসেচকগুলির একটি সমৃদ্ধ উৎস হিসেবে পরিচিত, যা প্রোটিন ভাঙনে সহায়তা করে।এই উন্নত প্রক্রিয়াটি আবার বাচ্চাদের আরও ভাল হজমশক্তি গড়ে তোলার দিকে পরিচালিত করে।তাছাড়াও একটি অতিরিক্ত সুবিধা হিসেবে, আম শিশুদের মধ্যে সাধারণত অ্যাসিডিটি বা অম্লতা অথবা অন্যান্য হজম জনিত সমস্যাগুলি হওয়াকে ব্যাহত করে।

7.ক্যান্সারের ঝুঁকি দূর করে

আমগুলি প্যাকটিন সমৃদ্ধ, যা হল একটি খাদ্যগত তন্তু।আর এটি গ্যাস্ট্রোইনটেস্টাইনাল ট্র্যাক্টের সাথে জড়িত ক্যান্সার বিকাশের সম্ভাবনাকে হ্রাস করে।আর সেই কারণেই আপনার সন্তানের নিয়মিত খাদ্য তালিকার সাথে আমকে অন্তর্ভূক্ত করা খুবই গুরুত্বপূর্ণ কারণ এটি তাদের ক্যান্সারের মত গুরুতর ব্যাধির থেকে দূরে রাখবে।

8.অনাক্রম্যতাকে বাড়িয়ে তোলে

আমগুলি হল ভিটামিন A এবং ভিটামিন C এর একটি সমৃদ্ধ উৎস।তাছাড়াও, আম বিভিন্ন ধরণের ক্যারোটিনয়েডের একটি ভাল উৎস যা একটি স্বাস্থ্যকর রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বজায় রাখতে সহায়তা করেএর অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট বৈশিষ্ট্যগুলি জীবাণুর আক্রমণগুলিকে প্রতিরোধ করতে সহায়তা করে, তার ফলে স্ব্যংক্রিয়ভাবে ধীরে ধীরে অনাক্রম্যতা বৃদ্ধি করে।

বাচ্চাদের জন্য আমের সহজ রেসিপিগুলি

আপনার বাচ্চার ডায়েটে পুষ্টিকর আমের সংযোজন কীভাবে করতে পারেন সে ব্যাপারে কি আপনি ভাবছেন? এ ব্যাপারে একটি স্বচ্ছ ধারণা পেতে আম দিয়ে প্রস্তুত নিম্নোলিখিত রেসিপিগুলির উপর একবার চোখ বুলিয়ে নিন।

1. ম্যাঙ্গো শেক

ম্যাঙ্গো শেক

ম্যাঙ্গো শেক শুধু শরীরকে হাইড্রেটই রাখে না, এটি স্বাদেও অতুলনীয়।

উপকরণ

  • ছোট ছোট টুকরো করে কাটা তাজা আম
  • স্বাদের জন্য চিনি
  • এক গ্লাস দুধ
  • প্রয়োজনানুযায়ী বরফের টুকরো

প্রণালী

  • একটি বড় বাটির মধ্যে কাটা আমের টুকরো, চিনি এবং দুধ ভালভাবে মিশিয়ে নিন।
  • এটিকে ভালভাবে মেশানোর জন্য একটি ব্লেন্ডার ব্যবহার করুন।
  • যতখণ না এটি ভালোভাবে মিশে পুরোপুরি তরল হয়ে যায় সেটিকে ব্লেন্ড করতে থাকুন।
  • যদি প্রয়োজন বোঝেন, এর সাথে বরফের টুকরো যোগ করুন আর ঠাণ্ডা ঠান্ডা আপনার বাচ্চাকে পরিবেশন করুন।

2.আমআঙ্গুরের স্মুদি

শিশুদের জন্য আমের এই স্মুদিটি হল আম এবং আঙ্গুরের একটি মিশ্রণ যা বাচ্চাদের জন্য যাদুমন্ত্রের মত কাজ করতে পারে।এটি কেবল স্বাদেই ভাল নয়, এটি সর্বোত্তম স্বাস্থ্য উপকারিতাগুলিও সরবরাহ করে।

উপকরণ

  • 1 টি আম ছোট ছোট টুকরো করে কাটা
  • 2 কাপ সবুজ আঙ্গুর
  • বড় 1 চামচ লেবুর রস
  • 1/2 কাপ জল
  • স্বাদের জন্য চিনি
  • 2 টি পুদিনা পাতা

প্রণালী

  • একটি বাটির মধ্যে আম এবং আঙ্গুরগুলিকে মিশিয়ে নিন এবং যতক্ষন না সেটি একটি সান্দ্র তরল আকার নেয়, ভালোভাবে সেগুলিকে মিশ্রিত করতে থাকুন।
  • অন্য আরেকটা বাটিতে, লেবুর রস, জল, চিনি এবং পুদিনা পাতা নিয়ে ভালভাবে মিশিয়ে নিন।
  • এবার মিশ্রণটিকে একটি গ্লাসে ঢালুন এবং চিনি ও পুদিনার মিশ্রণটি তার সাথে মিশিয়ে দিন।
  • প্রয়োজন হলে এর সাথে বরফের টুকরো যোগ করুন আর আপনার বাচ্চাকে পরিবেশন করুন।

3.আমের কেক

আমের কেক

একটি কেকের মধ্যে আমের মিষ্টতা এবং তার অতুলনীয় স্বাদ সেটিকে আম নিয়ে পরীক্ষা নিরীক্ষা চালানোর ক্ষেত্রে সর্ব শ্রেষ্ঠ রেসিপি করে তুলতে পারে।

উপকরণ

  • 1 কাপ ময়দা
  • স্বাদের জন্য চিনি
  • 1/2 কাপ ফ্রেশ ক্রীম
  • বড় 1 চামচ মাখন
  • 1 চামচ বেকিং পাউডার
  • 2 টি পাস্তুরাইজড ডিম
  • 2 টি আম

প্রণালী

  • আমের শাঁসটিকে বের করে নিয়ে একটি বড় বাটিতে করে এক পাশে রেখে দিন।
  • এবার আমের শাঁসের সাথে চিনি এবং হুইপড ক্রীম যোগ করে একটি ব্লেন্ডারের সাহায্যে সেটিকে ভালভাবে বিট করে নিন।
  • এরপর মিশ্রণটির সাথে ডিম যোগ করে পুনরায় ভালভাবে বিট করুন।
  • এখন ময়দা আর বেকিং পাউডারকে এর সাথে যোগ করুন আর যতক্ষণ না মিশ্রণটি ভালভাবে একসাথে সব মিশে যায় সেটিকে মিশ্রিত করতে থাকুন।
  • এবার এই মিশ্রণটিকে একটি মাইক্রো ওভেন সুরক্ষিত বাটিকে ভাল করে তেল বা মাখনের প্রলেপ লাগিয়ে তার মধ্যে ঢেলে দিন।
  • মোটামুটি প্রায় 10 মিনিটের জন্য মিশ্রণটিকে মাইক্রোওভেনে বেক করুন।
  • ওভেন বীপ করার পর সেটি পরীক্ষা করে দেখুন, এবং কেকটি যদি না বসে, সেক্ষেত্রে তবে সেটিকে আরও 4-5 মিনিটের জন্য বেক করুন।
  • একবার প্রস্তুত হয়ে গেলে সেটিকে ঠান্ডা হতে দিন এবং আপনার বাচ্চাদের পরিবেশন করুন।

4.আম এবং দইএর মিক্স পপসিক্যল

আম এবং দই-এর মিক্স পপসিক্যল

বাচ্চাদের জন্য আমের এই রেসিপিটি অবশ্যই একবার ট্রাই করবেন কারণ তারা এর ভরপুর স্বাদের জন্য এটিকে মনপ্রাণ দিয়ে উপভোগ করবে।

উপকরণ

  • 1 কাপ দই
  • 1 কাপ মিহি করে পেস্ট করা আম
  • স্বাদের জন্য চিনি
  • বড় চামচের 1/2 চামচ ভ্যানিলা এসেন্স

প্রণালী

  • একটি বাটির মধ্যে সবকিছু নিয়ে মিশিয়ে নিন এবং একটি মিহি পেস্টের আকার না হওয়া পর্যন্ত সেটিকে ভালভাবে ব্লেন্ড করুন।
  • এবার ব্লেন্ড করা পেস্ট জাতীয় এই মিশ্রণটি দিয়ে প্লাস্টিকের পপসিক্যাল ছাঁচগুলিকে ভরে নিন।
  • ভরাট করা ছাঁচগুলিকে রেফ্রিজেরেটরের মধ্যে ঢুকিয়ে সারা রাতের জন্য রেখে দিন।
  • যখন আপনি পপসিক্যালগুলিকে কঠিন হয়ে জমে উঠতে শুরু করা লক্ষ্য করবেন, তখন তার মধ্যে আইসক্রীমের কাঠিগুলিকে ঢুকিয়ে দিন।
  • আরও কয়েক ঘন্টার জন্য সেগুলিকে ফ্রীজে রাখুন এবং আপনার বাচ্চারা যখন স্কুল থেকে ফিরবে তাদের পরিবেশন করুন।

5.মহার্ঘ আমের স্যালাড

মহার্ঘ আমের স্যালাড

শিশুদের জন্য এগুলি হল আমের সহজ স্ন্যাকস জাতীয় খাবার।এই রেসিপিটির জন্য প্রয়োজন সর্বনিম্ন প্রয়াস, তবে এটি সরবরাহ করে সর্বোত্তম ফলাফলগুলি।

উপকরণ

  • 2-3 টি তাজা এবং খোসা ছাড়ানো আম
  • একটি লেবু
  • স্বাদের জন্য লবণ
  • এক চিমটে লাল মোরিচ
  • লঙ্কা গুঁড়ো(ঐচ্ছিক)

প্রণালী

  • আমগুলির খোসা ছাড়িয়ে ছোট ছোট টুকরো করুন এবং সেগুলিকে একটি বড় বাটির মধ্যে রাখুন।
  • অন্য আরেকটি বটিতে, লবণ, মরিচ, লঙ্কা গুঁড়ো এবং লেবুর রস ভালভাবে মিশিয়ে নিন।
  • এবার প্রস্তুত মিশ্রণটি আমের সাথে মিশিয়ে নিয়ে আপনার বাচ্চাকে পরিবেশন করুন।

এখন আপনি যেহেতু আমের স্বাস্থ্য উপকারিতাগুলির ব্যাপারে সচেতন, তবে এই রেসিপিগুলি করার চেষ্টা কেন একবার করবেন না? আজই এগুলি বানাবার জন্য চেষ্টা করুন তবে এর সাথে কৃত্রিম চিনি পারতপক্ষে যোগ না করার কথাটি মাথায় অবশ্যই রাখবেন।