শিশুর মুখে র‍্যাশ – প্রকার, কারণ এবং চিকিত্সা

শিশুর মুখে র‍্যাশ - প্রকার, কারণ এবং চিকিত্সা

শিশুদের ত্বক অত্যন্ত কোমল এবং মসৃণ হয়; এই কারণেই তাদের ত্বকে একটি ক্ষতচিহ্ন উপস্থিত হওয়ার সাথে সাথেই বাবামা আতঙ্কিত হতে শুরু করেন। আপনার শিশুর র‍্যাশ হলে তা তার জন্য ঝামেলা হতে পারে। সে কষ্ট পেতে এবং কাঁদতে শুরু করতে পারে, যেহেতু সে কেন অস্বস্তি বোধ করছে তা প্রকাশ করতে পারে না। যদি আপনার ছোট্টটির মুখে র‍্যাশ হয়ে এবং ক্রমাগত কাঁদতে থাকে, তবে বাবামা হিসাবে আপনাকে কখন পেশাদারের সাহায্য সন্ধান করতে হবে এবং বিভিন্ন ধরণের র‍্যাশগুলি বোঝার চেষ্টা করা উচিত। সাধারণত, শিশুর মুখের র‍্যাশগুলি ক্ষতিকারক হয় না এবং নিজে নিজেই ঠিক হয়ে যায়। তবে, কখনো কখনো শিশুর মুখে র‍্যাশ মারাত্মক অবস্থার ইঙ্গিত দিতে পারে। বিভিন্ন ধরণের র‍্যাশ এবং সেগুলি কিভাবে ব্যবস্থা করা যায় তা বোঝার জন্য পড়ুন।

aniview

শিশুর মুখে র‍্যাশের কারণ

শিশুর ত্বক খুবই সংবেদনশীল, তাই এতে র‍্যাশ বা জ্বালা হওয়ার সম্ভাবনা খুব বেশি। শিশুর মুখে র‍্যাশ হওয়ার কয়েকটি সাধারণ কারণ এখানে দেওয়া হল।

. খাবারে অ্যালার্জি

আপনার শিশুর অ্যালার্জি হতে পারে এমন খাবার জিনিসগুলি খাওয়ার ফলেও র‍্যাশের প্রতিক্রিয়া হতে পারে। মা এই জিনিসগুলি খেলে তা বুকের দুধের মাধ্যমে শিশুর কাছেও স্থানান্তরিত হতে পারে। যদি আপনার শিশু পরিপূরক খাবার বা ফর্মুলা দুধ খায়, তবে তাঁর নির্দিষ্ট কিছু উপাদানও একটি শিশুর মধ্যে অ্যালার্জি তৈরি করতে পারে এবং তার মুখের উপর র‍্যাশ হতে পারে।

. রাসায়নিক বিক্রিয়া

কখনও কখনও, কোনো শিশুর পোশাক যদি সঠিকভাবে ধোওয়া না হয়ে থাকে, শিশু যদি এমন পোশাক পরে, তবে তার র‍্যাশ হতে পারে। আপনার শিশুর পোশাক, বিছানা বা অন্য যে কোনো কাপড় যা আপনি আপনার শিশুর সংস্পর্শে আনছেন তা ধোয়ার জন্য আপনি যে ডিটারজেন্ট ব্যবহার করেন তার কারণেও র‍্যাশ হতে পারে। একইভাবে, ব্যবহার করা ক্রিম, সাবান বা সুগন্ধি পদার্থও শিশুর মধ্যে একই রকম প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি করতে পারে।

. জলবায়ুর চরম অবস্থা

শিশুদের ত্বক তীব্র সংবেদনশীল হয়, যা আশেপাশের পরিবেশের পরিবর্তনের সাথে সাথে প্রতিক্রিয়া জানায়। যদি বায়ু অত্যন্ত গরম থাকে বা এসির তাপমাত্রা খুব উচ্চ হয়ে যায়, তবে শিশুর ত্বক জলশূন্য হতে পারে, যার ফলে র‍্যাশ দেখা দেয়। বাহ্যিক আবহাওয়ার কারণে শিশুর পক্ষে পরিস্থিতি আরো কঠিন হয়ে উঠবে।

. সঠিক স্বাস্থ্যবিধি না থাকা

যদি আপনার বন্ধুরা এবং আত্মীয়স্বজনরা আপনার বাড়িতে আসে, তবে তারা শিশুকে কোলে নেওয়া বা তাকে নিয়ে খেলা করার আগে হাত সর্বদা স্যানিটাইজার দিয়ে পরিষ্কার করার জন্য ব্যবহার করতে পারেন। হাত না ধুয়ে শিশুকে ধরলে জীবাণু এবং অন্যান্য কণা শিশুর সংবেদনশীল ত্বকের সংস্পর্শে আসতে পারে, তা প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি করে। যদিও র‍্যাশ অদৃশ্য হয়ে যায়, জীবাণুগুলির উপস্থিতি এটিকে আবার প্রদর্শিত করতে পারে।

যদি ঘরে পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা বজায় না রাখা হয় তবে এটি অ্যালার্জির প্রতিক্রিয়া হতে পারে, যার ফলে র‍্যাশ দেখা দিতে পারে। আপনি যদি নিয়মিত নিজের ঘর বা আপনার শিশুর খেলনা পরিষ্কার না করেন বা জীবাণুমুক্ত না করেন তবে ঘরে বা খেলনাগুলিতে থাকা ধূলিকণা ঘরের চারদিকে ঘুরতে পারে। এই ধূলিকণাগুলি যদি শিশু শ্বাসের সাথে প্রবেশ করে বা তার ত্বকের সংস্পর্শে আসে তবে এতে র‍্যাশ দেখা দিতে পারে। এই জীবাণুগুলি আপনার শিশুকে অসুস্থও করতে পারে।

. পোষা প্রাণী থেকে অ্যালার্জি

আপনার বাড়িতে যদি পোষা প্রাণী থাকে তবে তাদের উপস্থিতিও আপনার শিশুর মধ্যে অ্যালার্জি তৈরি করতে পারে। পোষা প্রানীর লোম সাধারণত বাড়ির ভিতর চারপাশে ঘুরে বেরায় এবং অ্যালার্জি প্রতিক্রিয়া ট্রিগার করতে পারে। আপনি যদি আপনার পোষা প্রাণীর সাথে খেলেন, তবে আপনার শিশুটিকে আপনার কোলে নেওয়ার আগে নিশ্চিত করুন যে আপনার হাত এবং শরীরে আপনার পোষ্যের কোনো লালা বা লোম না থাকে, তা পরিষ্কার করে নিন।

পোষা প্রাণী থেকে অ্যালার্জি

র‍্যাশের বিভিন্ন প্রকার

শিশুদের কয়েকটি সাধারণ ধরণের র‍্যাশ নীচে উল্লেখ করা হল।

. শিশুদের একজিমা

শিশুদের একজিমাকে এটোপিক ডার্মাটাইটিস হিসাবেও অভিহিত করা হয়, সাধারণত রুক্ষ কাপড়, রাসায়নিক ডিটারজেন্ট বা অন্যান্য ত্বকের অ্যালার্জেন শিশুর সংস্পর্শে আসার পরে এই র‍্যাশ দেখা দেয়। এটি শুষ্ক, খসখসে ও লালচে বর্ণের হয় এবং সাধারণত মুখ, পা, বুকে ও হাতে দেখা দেয়।

. শিশুর ব্রণ

এই ব্রণ প্রাপ্তবয়স্কের ব্রণগুলির মতো ততটা খারাপ নয়। একটি শিশুর মুখের উপর ছড়ানো ছোট ছোট র‍্যাশ হয় যা ব্রণর মতো এবং গোলাপী বর্ণের হয়, মায়ের হরমোনগুলির সংস্পর্শে আসার কারণে শিশুর ত্বকে এটি উপস্থিত হয়। শিশুর ব্রণ শিশুর জন্মের মাত্র ২ থেকে ৪ সপ্তাহ পরেই প্রদর্শিত হতে পারে, তবে এটি প্রায় ৩ থেকে ৪ মাসের মধ্যে নিজে নিজেই পরিষ্কার হয়ে যায় এবং শিশুর মুখের উপর কোনো চিহ্ন ছাড়ে না।

. ইমপেটিগো

ইমপেটিগো ত্বকের একটি সাধারণ অবস্থা যা সংক্রামক হয়। ইমপেটিগো একটি শিশুর মুখ, বিশেষত তার নাকের চারপাশে এবং তার হাতগুলিতে অত্যন্ত বিরক্তিকর লাল রঙের ফোসকা আকারে উপস্থিত হয়। এই অবস্থাটি অত্যন্ত সংক্রামক এবং আসলে এটি একটি সংক্রমণ ব্যাধি। চিকিত্সকরা সাধারণত এটি সনাক্তকরণের সাথে সাথে অ্যান্টিবায়োটিক চিকিত্সার পরামর্শ দেন।

. মিলিয়া

আপনি যদি আপনার শিশুর মুখে ছোট সাদা রঙের দানা দানা দেখতে পান, তবে এগুলি মিলিয়ার স্পষ্ট লক্ষণ। এগুলি হল সাবসিডারেল সিস্ট। এগুলি নিজে নিজেই ঠিক হয়ে যায়, অতএব কোনো চিকিত্সার প্রয়োজন নেই।

মিলিয়া

. ড্রিবল র‌্যাশ

সাধারণত শিশুর মুখের আসেপাশে অঞ্চল জুড়ে দেখা যায়, গালে বা ঘাড়ের ওপারে, ড্রিবল র‍্যাশ হয়। যেমনটা এর নাম, ঠিক তেমনই এর কারণ হল শিশুর মুখ থেকে অতিরিক্ত মাত্রায় লালা বের হওয়া। যদি লালা ঘন ঘন মুছে ফেলা না হয় এবং এই অঞ্চলগুলিতে জমে থাকে তবে এর ফলে এই ধরণের র‍্যাশ হয়।

. সেবোরেহেইক ডার্মাটাইটিস

প্রাথমিকভাবে শিশুর ত্বকের যে অংশগুলিতে লোম উপস্থিত রয়েছে সেখানে দেখা যায়, এটি পরে শরীরের অন্যান্য অঞ্চলেও ছড়িয়ে যেতে পারে। এই র‍্যাশ ছোট লাল ফোলা অংশ ও মাথার ত্বকে হলুদ বর্ণের কিছু ক্রাস্টি স্কেল আকারে উপস্থিত হয় এবং এমনকি ভ্রু ও চোখের পাতাতেও দেখা দেয়। এর সাথে চুলকানিও হয়। এর পেছনের কারণটি হল মূলত শিশুর ফর্মুলা দুধ বা পরিপূরক খাবারের কোনো উপাদানে অ্যালার্জির প্রতিক্রিয়া।

. স্ল্যাপড চিক সিন্ড্রোম

স্ল্যাপড চিক সিন্ড্রোম একটি ভাইরাল সংক্রমণ যা এক বা উভয় গালে উজ্জ্বল লাল র‍্যাশ বিকাশের দিকে পরিচালিত করে। গালে র‍্যাশ সাধারণত কয়েক দিনের মধ্যে অদৃশ্য হয়ে যায়, তবে যদি হাত, বুক এবং পায়ের মতো শরীরের অন্যান্য অংশে এই র‍্যাশ বিকাশ হয় তবে অদৃশ্য হতে প্রায় ৭১০ দিনের মতো সময় লাগতে পারে। যদিও এই র‍্যাশ স্কুলে যাওয়ার বয়সী বাচ্চাদের মধ্যে বেশি দেখা যায়ম তবে এটি যে কোনো শিশুর হতে পারে। এই র‍্যাশ সাধারণত বেদনাদায়ক হয় না এবং এটি নিজে নিজেই অদৃশ্য হয়ে যায়। তবে আপনার শিশুর যদি দীর্ঘকাল ধরে র‍্যাশ থাকে তবে আপনার চিকিত্সকের সহায়তা নেওয়া উচিত।

. অন্যান্য কারণ

অ্যালার্জিজনিত প্রতিক্রিয়া এবং শুষ্ক ত্বকের সমস্যা ছাড়াও পোকামাকড়ের কামড় থেকে শুরু করে চরম তাপের মধ্যে প্রকাশ পর্যন্ত, বিভিন্ন কারণে বিভিন্ন ধরণের র‍্যাশ দেখা দিতে পারে। বেশিরভাগ ক্ষেত্রে ঘাড়ে এবং পিঠে পর্যবেক্ষণ করা হয়, এই ধরণের র‍্যাশের নাম স্যামন প্যাচস, এরিথেমা টক্সিকাম এবং মঙ্গোলিয়ান দাগগুলি, এর মতো নির্দিষ্ট শর্তগুলি অস্থায়ীভাবে প্রদর্শিত হতে পারে, এগুলি ক্ষতিকারক হয় না।

শিশুদের ফেসিয়াল র‍্যাশের জন্য চিকিত্সা

যদি আপনার শিশুর মুখে র‍্যাশ হয় তবে আপনার প্রথমে এবং সর্বাগ্রে করণীয় হল র‍্যাশজনিত জ্বালা ও চুলকানিতে আরাম দেওয়া। এটি আপনার শিশুকে কিছুটা স্বস্তি সরবরাহ করবে এবং র‍্যাশ ছড়িয়ে পড়া বা আরও খারাপ হওয়া থেকে রোধ করবে।

আপনার ডাক্তার এমন কিছু ল্যাভেন্ডার মলমের পরামর্শ দিতে পারেন, যা আপনি আপনার শিশুর ত্বকে তুলো ব্যবহার করে প্রয়োগ করতে পারেন। এটি ত্বককে হাইড্রেট করতে এবং শিশুর ব্যথা ও অস্বস্তি হ্রাস করতে সহায়তা করবে। গুরুতর ক্ষেত্রে, চিকিত্সক হাইড্রোকোর্টিসোন ক্রিম ব্যবহার করার পরামর্শ দিতে বা র‍্যাশ নিয়ন্ত্রণে আনার জন্য অ্যান্টিহিস্টামাইনগুলির পরামর্শ দিতে পারেন।

শিশুর মুখের র‍্যাশের জন্য ঘরোয়া প্রতিকার

বেশিরভাগ র‌্যাশ যেমন লাল র‍্যাশ, দুধের র‍্যাশ বা শিশুর মুখে তাপজনিত র‌্যাশ সহজ প্রতিকারের মাধ্যমে বাড়িতেই যত্ন নেওয়া যেতে পারে। যদি আপনার শিশুর মুখে এমন র‍্যাশ হয় যা গুরুতর নয় বা উপরে বর্ণিত অবস্থার কারণে হয়, তবে এই ঘরোয়া প্রতিকারগুলি ব্যবহার করে দেখুন।

  • আইস কিউব ব্যবহার করুন – র‍্যাশ থেকে জ্বালা হতে পারে, যা আপনার শিশুকে অস্বস্তি বোধ করাবে। ব্যথা প্রশমিত করতে আইস কিউব ব্যবহার করুন। একটি কাপড়ে ২৩টি আইস কিউব রাখুন এবং এটি মুড়িয়ে দিন। তারপরে এটিকে আস্তে শিশুর ত্বকে বোলান। আইস কিউবগুলি ব্যাথা কিছুটা কমিয়ে আনতে সহায়তা করবে।
  • বুকের দুধ ব্যবহার করুন আক্রান্ত স্থানে বুকের দুধ ব্যবহার করাও র‍্যাশ নিরাময়ে সহায়তা করতে পারে। আপনার শিশুর র‍্যাশ থাকলে আক্রান্ত স্থানে কিছুটা বুকের দুধ লাগান। এটি অ্যান্টিবডিগুলিতে পূর্ণ, যা র‍্যাশের চিকিত্সা করতে সহায়তা করবে। তাছাড়া, আপনার শিশুর এর প্রতি অ্যালার্জির প্রতিক্রিয়া হওয়ার কোনো ঝুঁকি নেই।
  • ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করুন সেরামাইডযুক্ত ময়েশ্চারাইজার প্রয়োগ করুন, কারণ এটি ত্বকের সমস্যায় কার্যকারীভাবে উন্নত করতে পারে।

প্রতিরোধ

আপনারা জানেন যে প্রতিকারের চেয়ে প্রতিরোধই ভাল, তাই সমস্যাটি বেশি দেরী হওয়ার আগে কেন কোনো গাফিলতি করবেন না। র‍্যাশ রোধ করতে আপনি নিতে পারেন এমন কিছু ব্যবস্থা এখানে রইল।

  • আপনার শিশুর ঘরে একটি হিউমিডিফায়ার ব্যবহার করুন যাতে পার্শ্ববর্তী বায়ু শুষ্ক না থাকে এবং আপনার শিশুর ত্বককে শুষ্ক না করে।
  • আপনার শিশুর যদি র‍্যাশ হয়ে থাকে তবে অন্য লোকদেরকে অনুরোধ করুন যেন তারা শিশুটিকে একেবারেই না ছোঁয়। এমনকি কোনো র‍্যাশ না থাকলেও সংবেদনশীলতার ইতিহাস থাকলে, তাদের থেকে বাইরের সবাইকে দূরত্ব বজায় রাখতে হবে এবং আপনার সন্তানের খুব বেশি স্পর্শ যেন না করে তা নিশ্চিত করুন।
  • শিশু যদি নখ দিয়ে মুখ চুল্কাতে থাকে, তবে মুখের র‍্যাশ আরও বাড়তে পারে। নখগুলি ছোট রাখার জন্য যথাসাধ্য চেষ্টা করুন, যাতে র‍্যাশগুলি আর না বাড়ে।
  • আপনার শিশুর শরীরের উপরের অংশ পরিষ্কার করতে সাবানের ব্যবহার এড়িয়ে চলুন, কারণ সেগুলি কঠিন হতে পারে এবং এমনকি বাড়ির কিছু জীবাণুও তাতে থাকতে পারে।
  • অতিরিক্ত সংবেদনশীল ত্বক থাকলে আপনার শিশুর শরীরের উপরের অংশটি সাবান দিয়ে পরিষ্কার করা থেকে বিরত থাকুন। পরিষ্কার জল ব্যবহার করা যথেষ্ট।
  • যদি কোনো র‍্যাশ উপস্থিত থাকে তবে অঞ্চলটি পরিষ্কার করার জন্য নরম কাগজের তোয়ালে ব্যবহার করুন। নিজে নিজেই শুকিয়ে যেতে দিন, এটিকে বেশি ঘষবেন না।

যদি সঠিক স্বাস্থ্যবিধি বজায় না থাকে তবে শিশুর র‍্যাশগুলি ক্ষতিকারক হওয়ার পাশাপাশি চরম দিকে যেতে পারে। সঠিক ব্যবস্থা গ্রহণের মাধ্যমে আপনি আপনার শিশুর উপর প্রভাব ফেলতে পারে এমন বাহ্যিক কারণগুলি প্রতিরোধ করতে পারেন এবং র‍্যাশ আরও বাড়া থেকে রোধ করতে পারেন। তবে, আতঙ্কিত হবেন না, কারণ আপনার শিশুটি এই পর্যায়ে দিয়ে ঠিক পেরিয়ে যাবে। আপনি যদি নিশ্চিত না হন তবে ডাক্তারের সাথে পরামর্শ করতে দ্বিধা করবেন না।