কীভাবে শিশুর কানগুলিকে পরিষ্কার করবেন

কীভাবে শিশুর কানগুলিকে পরিষ্কার করবেন

শৈশবস্থায় স্বাভাবিক পরিমাণে কানের খইল গঠিত হওয়া হল সাধারণ ব্যাপার,কিন্তু বহু মায়েরাই তাদের শিশুদের কান পরিষ্কার করার বিষয়ে উদ্বেগের মুখোমুখি হয়ে থাকেন।বাচ্চাদের কানের পর্দা ফেটে যাওয়ার ঝুঁকি সম্পর্কে সচেতন হওয়ার কারণে অনেক মায়েরাই এটি নিজেরা পরিষ্কার করার ব্যাপারে অনিশ্চিত হয়ে ওঠেন।বাচ্চাদের কান পরিষ্কারের সময় সুরক্ষার সর্বাধিক অগ্রাধিকার হওয়া প্রয়োজন।এ ব্যাপারে একাধিক উপায় আছে যেগুলি বোঝা সহজ এবং নিরাপদ ভাবে ব্যবহার করা যেতে পারে।

aniview

কানের খইল আসলে কি

কানের খইল যেটি আবার সেরুমেন বা কানের ময়লা নামে পরিচিত,একটি আঠালো চটচটে উপাদান যেটি কানের অভ্যন্তরে উৎপন্ন হয়।এটি মৃত ত্বকের কোষ এবং কানের আস্তরণে অবস্থিত গ্রন্থির নিঃসরণের দ্বারা গঠিত হয়ে থাকে।কানের খইলের মতই এটি বিরক্তিকর হয়ে উঠতে পারে,এটি আসলে আপনার সন্তানের শারীরবৃত্তীয় স্বাভাবিকত্বের একটি লক্ষণ মাত্র।অধিকন্তু,কানের খইলের নিঃসরণ হল জল অথবা বাইরের সংক্রমণ কানের ভিতরে প্রবেশ করা থেকে কানকে রক্ষা করার জন্য দেহের একটি প্রাকৃতিক পদ্ধতি।

শিশুদের জন্য কতটা কানের খইল হওয়া স্বাভাবিক

যদিও শিশু এবং প্রাপ্তবয়স্কদের কানের খইলের নিঃসরণ অকৃপণভাবে হয়ে থাকতে পারে,তবে শিশুদের অতিরিক্ত খইল হওয়া সাধারণত অস্বাভাবিক।প্রতিটি কানে ময়লার পরিমাণ সবসময় সমান হয় না,এবং একটি কানে অপর কানটির থেকে বেশি পরিমাণেও ময়লা উৎপন্ন হতে পারে।স্বাস্থ্যকর কানের খইল বজায় থাকার চলতি রীতিটি হল এই যে,আপনার শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ কর্ণকুহরের মধ্য দিয়ে কানের পর্দাটিকে পরিষ্কার ভাবে দেখতে পাবেন।যদি কর্ণ গহ্বরটি জমে থাকা কঠিন কানের খইল দ্বারা অবরুদ্ধ হয়ে যায়,অথবা সেখানে যদি হলুদাভ স্তরপূর্ণ কানের খইলের আস্তরণ গড়ে ওঠে যা আপনার বাচ্চার অস্বস্তির কারণ হয়ে ওঠে,তবে সেটি সমস্যার হয়ে উঠতে পারে।

আমার বাচ্চার কি কানের খইল বা কানের সংক্রমণ থেকে কানে যন্ত্রনা হতে পারে?

আমার বাচ্চার কি কানের খইল বা কানের সংক্রমণ থেকে কানে যন্ত্রনা হতে পারে?

যখন বাচ্চারা কানে অস্বস্তি অনুভব করে তখন তাদের মধ্যে প্রবণতা থাকে তাদের কানগুলি ধরে টানা এবং সেগুলিকে ঘষতে শুরু করার এবং এমনকি তাদের আঙুলগুলিকে কানের ভিতরে ঢুকিয়েও দেয় সেগুলির সন্ধান করতে অথবা অস্বস্তিকে কমাতে।কানের ময়লার অস্বস্তিকর প্রকৃতির জন্য এটি একটি সাধারণ প্রতিক্রিয়া। তবে,কানের খইলের উৎপাদনের কারণে কোনও জ্বর আসে না বা ঘুমেরও কোনও সমস্যা হয় না,কারণ কানের খইল হল মানব দেহের একটি সাধারণ নিঃসরণ।

কানের ভিতরে সাধারণভাবে পর্যবেক্ষণের দ্বারাই প্রচুর পরিমাণে জমে ওঠা কানের খইলগুলিকে চিহ্নিত করা যেতে পারে।কখনও কখনও কানের ভিতর থেকে খুব সামাণ্য বাদামী বর্ণের তরল নিসৃত হতে পারে।যদি আপনার বাচ্চার এর জন্য খুব ব্যথা হয় অথবা কানের ময়লাগুলি স্বাভাবিকের তুলনায় পৃথক ধরণের দেখতে হয়,তবে সেক্ষেত্রে কানের সংক্রমণ থেকে ব্যথাটা হওয়ার সম্ভাবনা থাকতে পারে।একটি সংক্রমণের সুষ্পষ্ট একটি সংকেত হল উচ্চ মাত্রায় জ্বর অথবা শিশুর কান থেকে দুধেল সাদা রঙের পূজ বেরিয়ে আসা।এর অর্থ আবার হতে পারে কানের পর্দায় ছিদ্র,যা শিশুর কান মধ্যস্থ ময়লার স্রাবের কারণে অসহ্য যন্ত্রণা এবং অস্বস্তি সৃষ্টি করতে পারে।অন্য জিনিসগুলির মধ্যে,আপনার বাচ্চা যদি বিরক্ত হয়ে ওঠে এবং তাকে শোয়ানো হলেই সে যদি কাঁদতে শুরু করে এবং এছাড়াও সে যদি ডায়রিয়ায় ভুগে থাকে,এগুলি কানের একটি সংক্রমণকে প্রকাশ করারই লক্ষণ এবং এক্ষেত্রে যত শীঘ্র সম্ভব আপনার অমূল্য রত্নটিকে একজন শিশুরোগ বিশেষজ্ঞের কাছে দেখানো উচিত।

শিশুদের কানের মধ্যে কানের খইল গড়ে ওঠার কারণসমূহ

কানের খইল উৎপাদন হল চুলের বৃদ্ধির মতই মানব দেহের অন্যতম একটি প্রাকৃতিক পদ্ধতি।কানের পর্দাগুলির জন্য প্রতিরক্ষামূলক পদ্ধতি হিসেবে শিশুদের কানের মধ্যে সবসময় খইলগুলি উৎপাদিত হতে থাকে।একবার উৎপন্ন হয়ে গেলে,খইলগুলি কানের গহ্বরের মধ্য দিয়ে ধীরে ধীরে কানের বাইরে বেরিয়ে আসে।এটি কর্ণকুহরের অভ্যন্তরে অত্যন্ত ক্ষুদ্র, চুলের মতো কাঠামো দ্বারা সম্পন্ন হয়, যাকে সিলিয়া বলা হয়।

যেহেতু কানের ভিতরে ত্বকের বৃদ্ধিও বহির্মুখী হয়ে থাকে,কানের খইলগুলি কর্ণনালীর বাইরের দিকে ঠেলে বেরিয়ে আসে।সাধারণত এটি আঠালো এবং সামাণ্য চটচটে প্রকৃতির হয়,আপনারে সন্তান যদি পর্যাপ্ত তরল পান না করে তবে কানের খইল আরও গভীর হতে পারে।যখন কানের এই ময়লা বাইরে ঠেলে বেরিয়ে আসার প্রাকৃতিক প্রবণতার প্রতিরোধে তুলোর দ্বারা সেটি মুছে পরিষ্কার করার চেষ্টা করা হয়,তখন সাধারণত কার্যটির ফলস্বরূপ কর্ণ নালীর মধ্য দিয়ে অনুরূপভাবে কানের খইলগুলি আরও গভীরভাবে ঠেলতে থাকে।এর ফলে কানের খইল গড়ে উঠতে শুরু করে,যার পরিণতিতে কর্ণ নালী অবরুদ্ধ হয়ে যায়।

কীভাবে আপনার ছোট্ট শিশুটির কান পরিষ্কার করবেন

কীভাবে আপনার ছোট্ট শিশুটির কান পরিষ্কার করবেন
এখানে কিছু উপায়ের পথ রইল যার দ্বারা আপনি বাড়িতেই আপনার সোনার কানের খইল পরিষ্কার করতে পারেন।যদি আপনি চিন্তা করেন যে কি দিয়ে আপনার ছোট্টটির কান পরিষ্কার করতে পারেন,তবে এখানে তার উত্তর দেওয়া হল।

1. একটি ওয়াশক্লথ ব্যবহার করুন

কানের খইল অপসারণের সর্বোত্তম উপায় হল একটি নরম ওয়াশক্লথ এবং উষ্ণ জলের সংমিশ্রণটি ব্যবহার করা এবং তারপরে প্রয়োজনে অতিরিক্ত ক্রিয়াকলাপগুলি অনুসরণ করা।

এখানে রইল কীভাবেঃ উষ্ণ জলের মধ্যে ওয়াশক্লথটিকে ভিজিয়ে রাখুন।এরপর সেটি দিয়ে শিশুর কানের বাইরের অঞ্চলের চারপাশে মুছে দিন এবং বাইরে চুঁইয়ে পড়া যেকোনও কানের ময়লাকে ধীরে ধীরে পরিষ্কার করে দিন।কানের ময়লার বেশীরভাগটাই নিজে থেকেই বাইরে বেরিয়ে আসবে।আর অবশিষ্টাংশটুকু মুছে নেওয়া যেতে পারে।কর্ণ নালিকার ভিতরে ওয়াশক্লথটিকে ঠেলে ঢুকানোর চেষ্টা করবেন না।আপনার বাচ্চাকে তার শিশুরোগ বিশেষজ্ঞের কাছে নিয়ে যান এবং তাঁকে তার কানের ভিতরে দেখতে দিন।আপনার শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ হয়ত একটি ছোট্ট যন্ত্র দিয়ে তার কানের ভিতরের ময়লাগুলিকে চেঁছে বের করে আনতে পারেন।

2. শিশুদের কানের বা ইয়ার ড্রপগুলির ব্যবহার

যদি শিশুদের কানের অভ্যন্তরে খইলগুলি খুব গভীরভাবে গড়ে ওঠে,আপনার হয়ত ইয়ার ড্রপ ব্যবহারের প্রয়োজন হতে পারেএই ইয়ার ড্রপগুলি পরিচালনা করার পূর্বে,নিশ্চিত হয়ে নিন যে আপনি যেটি ব্যবহার করছেন সেটিকেই আপনার শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ আপনার সন্তানের জন্য নির্ধারণ করেছেন।এটি প্রয়োগের পূর্বে আপনার বাচ্চাকে শান্ত করুন এবং তাকে অন্য কোনও কাজের মধ্যে নিযুক্ত রাখুন,অন্যথায় দিনে এমন একটা সময়কে বেছে নিন যখন আপনার বাচ্চা সাধারণত চুপচাপ থাকে এবং বিশ্রাম নেয়।ইয়ার ড্রপের শিশিটিকে আপনার হাতের তালুর মধ্যে রেখে সামান্য গরম করে তুলুন।এবার তার অবরুদ্ধ কানটিকে আপনার দিকে মুখ করে রেখে আপনার বাচ্চাকে আপনার কোলে শুইয়ে দিন।এরপর একটি আই ড্রপার নিয়ে সেটিকে ইয়ার ড্রপের শিশির দ্রবণটি দ্বারা পূর্ণ করে নিন।

এবার ড্রপারটিকে আপনার সন্তানের কানের কাছাকাছি নিয়ে আসুন,এবং ধীরে ধীরে তার কানের মধ্যে দ্রবণটিকে দিতে থাকুন যতক্ষণ না তার কর্ণ নালীটি সম্পূর্ণরূপে পূর্ণ হয়ে ওঠে।দ্রবণটি তার কানের অভ্যন্তরে স্থির হওয়া পর্যন্ত কয়েক মিনিট অপেক্ষা করুন।আপনার বাচ্চা কানের ভিতরে একটি অদ্ভুত অনুভূতি অনুভব করতে পারে,সুতরাং তাকে শান্ত রাখা নিশ্চিত করুন।এই ইয়ার ড্রপগুলি কর্ণ গহ্বরের অভ্যন্তরস্থ খইলগুলিকে নরম করে তুলবে এবং যেকোনও অতিরিক্ত ড্রপগুলিকে পরিষ্কার করে ফেলবে ময়লাগুলি কান থেকে গড়িয়ে বেরিয়ে আসার মাধ্যমে।এই চিকিৎসা পদ্ধতিটির পুনরাবৃত্তি করতে হবে অন্ততপক্ষে 3-5 দিন।এটি সম্পন্ন হয়ে গেলে,শিশুর যেকোনও একটি স্নানের সময়,একটি রবারের ড্রপারের দ্বারা ঈষদুষ্ণ জলের ফোয়ারা শিশুর অবরুদ্ধ কানের ভিতরে প্রবেশ করান।কানের ময়লার একটি বৃহৎ অংশ ভেসে কান থেকে বেরিয়ে আসবে এবং তাদের কর্ণ গহ্বরটি খুলে যাবে।

3. তুলোর পুছা ব্যবহার

এটি ওয়াশক্লথ ব্যবহারের অনুরূপ।একটি তুলোর পুছাকে নিয়ে সেটি তেলের পারক্সাইড অথবা উষ্ণ জলের দ্বারা ভিজিয়ে নিয়ে উপরে বর্ণিত পদ্ধতি অনুসরণ করুন।

শিশুর কান পরিষ্কারের নিরাপদ উপায়

উপরে উল্লিখিত যেকোনও পদ্ধতিই শিশুর কান পরিষ্কারের জন্য ব্যবহার করা যেতে পারেতবে,কি করা চলবে না সেটি মনে রাখাটা গুরুত্বপূর্ণ।

শিশুর কান পরিষ্কার করার মূল নিয়মটিতে মাবাবাকে তুলোর বা কটন বাডগুলি ব্যবহার থেকে দূরে থাকতে বলা হয়তারা সেগুলিকে যতটা সুস্পষ্ট এবং সুবিধাজনক বলে মনে করেন,তুলোর পুঁছাগুলি কর্ণ নালিকার আরও ভিতরে কানের খইলগুলিকে ঠেলে ঢুকিয়ে দেয়।যা সমস্যাটিকে আরও খারাপ করে তোলে এবং ফলস্বরূপ কানের খইলগুলি ক্রমশ গড়ে উঠতে থাকে এবং কর্ণ গহ্বরকে অবরুদ্ধ করে তোলে।এই একই ঘটন ঘটে থাকে আঙুলগুলিকে ঢোকানোর ফলেও।কর্ণ গহ্বরের অভ্যন্তরে যেকোনও কিছু প্রবেশ করানোর ফলেই খইলগুলি আরও গড়ে উঠতে থাকে অথবা কানের পর্দার ক্ষতি হওয়ার কারণ হয়ে ওঠে এবং এমনকি সেটিকে ফাটিয়েও দিতে পারে।যদি কানের খইলের সমস্যা ক্রমশ খারাপের দিকে যেতে শুরু করে,তবে আপনার শিশুরোগ বিশেষজ্ঞের সুপারিশ অনুযায়ী শিশুদের কানের খইলের ড্রপ ব্যবহার করা ভাল একটি ধারণা হবে।

ঘরোয়া প্রতিকার

প্রথাগত ওয়াশক্লথ এবং গরম জলের কৌশল ছাড়াও,এক্ষেত্রে এক গুচ্ছ ঘরোয়া প্রতিকারও আছে যেগুলি কানের খইল পরিষ্কার করার ক্ষেত্রে কার্যকর।

1. লবণ জল

কানের খইলগুলিকে নরম করে তোলার এবং সেগুলি থেকে মুক্তি পাওয়ার একটি সহজতম উপায় হল লবণ জলের ব্যবহার।

2. বেবি অয়েল

একটি ড্রপারের সাহায্যে কয়েক ফোঁটা বেবি অয়েল বা জলপাই তেল নিয়ে শিশুর অবরুদ্ধ কানের ভিতরে দিয়ে সেই কানটিকে একটি একটি তুলর বলের সাহায্যে আটকে দিয়ে অল্প কিছুক্ষণের জন্য রাখলে তা কানের মধ্যস্থ খইলগুলিকে নরম করে তুলতে এবং সেগুলিকে বাইরে গড়িয়ে বেরিয়ে আসতে সহায়তা করে।

3. ভিনিগার

একটা সময়ে,ভিনিগার এবং রাবিং অ্যালকোহলকে ব্যবহার করা হত কানের খইলের অপসারণ করার পাশাপাশি কানের সংক্রমণ প্রতিরোধের জন্যও।

4. জল+বেকিং সোডা

কিছুটা জল এবং তার 10% বেকিং সোডার একটি দ্রবণ কানের খইল থেকে মুক্তি পাওয়ার একটি বর্ষ প্রাচীন প্রতিকার।

5. গ্লিসারিন

কানের খইল বের করার অন্য আরেকটি ভীষণ জনপ্রিয় প্রতিকার হল গ্লিসারিনের ব্যবহার,কারণ এর তৈলাক্ত এবং ময়শ্চারাইজিং প্রকৃতি জমে থাকা শক্ত খইলগুলিকে আলগা করতে সহায়তা করে।

সকল প্রকার ঘরোয়া প্রতিকারগুলিই আপনার সন্তানের জন্য লাভজনক নাও হতে পারে।শিশুর সাথে কোনও কিছুই পরিচালনা করার পূর্বে আপনার শিশুরোগ বিশেষজ্ঞের কাছ থেকে এ বিষয়ে একটি দ্রুত অনুমোদন নেওয়া সব সময়ের জন্যই ভাল ধারণা হয়ে ওঠে।

শিশুর কান পরিষ্কার করার সময় নেওয়া সতর্কতাগুলি

এটি শুনতে যতটা সহজ লাগে,একটি শিশুর কান পরিষ্কার করাটা ঠিক ততটাই সহজ কাজ নয় এবং সামাণ্যতম ভুলও আপনার সন্তানের কানে তীব্র যন্ত্রণার কারণ হয়ে উঠতে পারে।শিশুর কানের যত্ন নেওয়াকে অগ্রাধিকার দেওয়া প্রয়োজন।

যা করবেন

  • শিশুটিকে শান্ত এবং কোনও কিছুর মধ্যে ব্যস্ত রাখা নিশ্চিত করুন।
  • পরিষ্কার ওয়াশক্লথ অথবা তুলোর পুঁছা ব্যবহার করুন
  • যদি কানের খইল গভীর হয়ে ওঠে,ডাক্তারের সাথে আলোচনা করে পরামর্শ নিন

যা করবেন না

  • কানের ভিতরে কোনও তীক্ষ্ণ ও সূঁচালো বস্তু ব্যবহার করবেন না
  • ইয়ার বাড অথবা তুলোর পুঁছাগুলিকে কানের ভিতরে প্রবেশ করানো এড়িয়ে চলুন।
  • কানের অতিরিক্ত খইলগুলিকে বহিষ্কার করার জন্য ঠাণ্ডা জল ব্যবহার করবেন না।
  • জোরপূর্বক কানের ভিতরে কোনও তরল অথবা জল স্প্রে করবেন না।
  • খুব ঘন ঘন বা খুব কঠোর ভাবে আপনার সন্তানের কান পরিষ্কার করবেন না।

কখন ডাক্তার দেখাবেন?

কখন ডাক্তার দেখাবেন?

মাবাবারা জানতে উৎসুক হন যে কত বার এবং কত ঘন ঘন শিশুর কান পরিষ্কার করা যায়যখন শিশুর কানের ভিতরে অতিরিক্ত কানের খইল গড়ে ওঠে এবং আপনি ঘরোয়া প্রতিকারগুলির দ্বারা সেগুলিকে অপসারিত করতে ব্যর্থ হন,তখন তাকে একজন শিশুরোগ বিশেষজ্ঞের কাছে নিয়ে গিয়ে দেখানএছাড়াও,যদি কান সংক্রমণের লক্ষণগুলি প্রকাশ পায় যেমন দুধেল সাদা তরল নিঃসরণ,কান ব্যথা,জ্বর অথবা এমনকি কানের খইল বের করার পর শ্রবণ ক্ষমতার হ্রাস পাওয়া,তৎক্ষণাৎ আপনার ডাক্তারকে দেখান।

শিশুদের কানের খইল ক্ষতিকারক নয় যতক্ষণ না সেটি কানের অভ্যন্তরে অস্বাভাবিক হারে জমতে থাকে এবং সংক্রামিত হয়।ঘরোয়া প্রতিকারগুলি ব্যবহারের মাধ্যমে নিরাপদে এবং সাবধানতার সাথে আপনার সন্তানের কান পরিষ্কার করে দেওয়া সবসময়ের জন্যই উপকারী।যদি আপনার স্বাভাবিকের বাইরে কিছু মনে হয় অথবা আপনি অন্য ধরনের কোনও প্রতিকার প্রয়োগের মনস্থ করে থাকেন,সেক্ষেত্রে সর্বদাই আপনার শিশুরোগ বিশেষজ্ঞের দ্বারা পরীক্ষা করিয়ে তাঁর মতামত নেবেন।