গর্ভাবস্থায় ঢ্যাঁড়শ (ভেন্ডী) খাওয়া- এটি কি ভাল?

গর্ভাবস্থায় ঢ্যাঁড়শ (ভেন্ডী) খাওয়া- এটি কি ভাল?

তাজা শাকসবজিগুলির একটি ভাল ডায়েট আপনার দেহে একটি চমৎকার পার্থক্য নিয়ে আসতে পারে, বিশেষ করে গর্ভাবস্থায়।আপনার শরীরে হয়ে চলা অসংখ্য পরিবর্তনের সাথে সেগুলিকে বজায় রাখতে এবং সমন্বয়বিধান করতে আপনার দেহকে পর্যাপ্ত পুষ্টি সরবরাহ করাটা গুরুত্বপূর্ণ।আপনার গর্ভাবস্থাকালীন ডায়েটের জন্য ঢ্যাঁড়শের মত সবজিটি আদর্শ হতে পারে।আসুন গর্ভাবস্থায় ঢ্যাঁড়শের সকল উপকারিতাগুলির ব্যাপারে সবিস্তারে সন্ধান করা যাক।

aniview

ঢ্যাঁড়শের পুষ্টিমান

ঢ্যাঁড়শ বা ভেন্ডীর ক্ষুদ্র কাঠামোটিতে প্রচুর পুষ্টিকর উপাদান সঞ্চিত থাকে।এখানে এই সবজিটির পুষ্টি মান সহ একটি চার্ট দেওয়া হল।

পুষ্টি উপাদান

প্রতি 100 গ্রামে মান

এনার্জি বা শক্তি 30 kcal
কার্বোহাইড্রেট বা শর্করা 7.6 g
ফাইবার বা তন্তু 3.2 g
ফ্যাট বা স্নেহ পদার্থ 0.1 g
প্রোটিন 2.0 g
ভিটামিন A 0.198 mg
ভিটামিন B-9 বা ফোলেট 87.8 g
ভিটামিন C 21 mg
ক্যালসিয়াম 75 mg
ম্যাগনেসিয়াম 57 mg

গর্ভাবস্থায় ঢ্যাঁড়শের স্বাস্থ্য উপকারিতাগুলি

ঢ্যাঁড়শ গর্ভবতী মহিলাদের নানাবিধ উপকারিতা সরবরাহ করে।এটি কম ক্যালোরির একটি সবজি এবং ফোলেট ও রাইবোফ্লাভিনে সমৃদ্ধ যা শিশুর স্বাস্থ্যকর বিকাশের জন্য গুরুত্বপূর্ণ।গর্ভাবস্থায় ঢ্যাঁড়শ খাওয়ার কয়েকটি উপকারিতা হলঃ

1.ভিটামিন C তে পূর্ণ

ভিটামিন C দেহে আয়রণ শোষণে সহায়তা করে যা আপনার শিশুর বৃদ্ধির উন্নতি সাধন করে।একটি অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট হিসেবে, ভিটামিন C আবার কার্ডিওভাসকুলার ব্যাধি এবং উচ্চ রক্তচাপ প্রতিরোধ করে।এছাড়াও এটি অনাক্রম্যতা বৃদ্ধি করে এবং আপনার শিশুর ত্বক, রক্তজালিকা এবং হাড়ের বিকাশে সহায়তা করে।

2.ফোলেট সমৃদ্ধ

ঢ্যাঁড়শ ফোলেটের একটি ভাল উৎস এবং ফোলিক অ্যাসিড শিশুদের মধ্যে জন্মগত ত্রুটির ঝুঁকি রোধ করতে সহায়তা করে।ঢ্যাঁড়শ খাওয়ার সুপারিশ করা হয় বিশেষ করে গর্ভাবস্থার 4র্থ থেকে 12 তম সপ্তাহের মধ্যে কারণ এটি হল সেই সময় যখন আপনার গর্ভস্থ শিশুর নিউরাল টিউবগুলির বিকাশ ঘটে।আর ঢ্যাঁড়শ মধ্যস্থ ফোলিক অ্যাসিড এই বিকাশে সহায়তা করবে।

3.অ্যান্টিঅক্সিডেন্টগুলির ভালো উৎস

ঢ্যাঁড়শের মধ্যে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টঅক্সিডেন্ট রয়েছে যা আপনার শিশুর রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা গড়ে তুলতে পারে, ভ্রূণের বৃদ্ধর উন্নতি ঘটাতে পারে এবং শিশুর মধ্যে কার্ডিওভ্যাসকুলার ব্যাধি বা ডায়াবেটিসের ঝুঁকি হ্রাস করতে পারে।

4.ফাইবার বা তন্তুতে পরিপূর্ণ

দ্রবণীয় এবং অদ্রবণীয় খাদ্যগত তন্তুর একটি সমৃদ্ধ উপাদান ঢ্যাঁড়শকে গর্ভাবস্থায় কোষ্ঠকাঠিণ্য প্রতিরোধের একটি দুর্দান্ত পছন্দ করে তুলেছে।এর মধ্যস্থ দ্রবণীয় ফাইবার ডায়াবেটিসের ঝুঁকি হ্রাস করে এবং এমনকি রক্তে কোলেস্টেরলের মাত্রাও কম করে।

5.ভাল ঘুমে সাহায্য করে

তেল এবং প্রোটিনের পাশাপাশি ট্রাইপটোফ্যানের মত অপরিহার্য অ্যামাইনো অ্যাসিডগুলি ঢ্যাঁড়শ বা ভেন্ডীর মধ্যে উপস্থিত যা মানসিক স্বাস্থ্যের উন্নতি ঘটানো এবং ভাল ঘুম হতে সাহায্য করার জন্য পরিচিত।

এগুলি ছাড়াও ভেন্ডীর শ্লেষ্মা এবং ফাইবার বা তন্তু রক্তের মধ্যে গ্লুকোজ স্থির রাখার কারণে এটি আপনার দেহ থেকে টক্সিন বা বিষাক্ত পদার্থগুলি অপসারিত করতে পারেগর্ভবতী মহিলারাও তাদের ত্বক এবং চুলের স্বাস্থ্য বজায় রাখতে ভেন্ডী সেবন করতে পারে, বিশেষত যদি তারা চুল পড়া এবং ত্বকজনিত ফুসকুড়ি বা র‍্যাশে আক্রান্ত হয়ে থাকেন।

আপনার গর্ভাবস্থাকালীন ডায়েটে কীভাবে ঢ্যাঁড়শ অন্তর্ভূক্ত করবেন?

আপনার গর্ভাবস্থার ডায়েটের সাথে ভেন্ডী যুক্ত করার সাথে যে প্রচুর উপকারিতা পাওয়া যায় তা এমন একটা জিনিস, যা আপনার কিছুতেই বাদ দেওয়া উচিত নয়।আপনার খাদ্য তালিকায় ঢ্যাঁড়শ কীভাবে সংযুক্ত করতে পারেন তার কিছু পরামর্শ এবং সেটি করার সময় অনুসরণ করা প্রয়োজন এমন কিছু সাবধানতার বিষয় এখানে আলোচিত হলঃ

  • ঢ্যাঁড়শগুলি কাটা অথবা রান্না করার আগে সেগুলিকে ভালো মত ধুয়ে নেওয়ার বিষয়টি আপনি নিশ্চিত করুন।এটি যেকোনও সংক্রমণের ঝুঁকি রোধ করতে সাহায্য করবে।
  • ঢ্যাঁড়শ মধ্যস্থ গুরুত্বপূর্ণ পুষ্টি উপাদানগুলির গুণ হারিয়ে যাওয়া রোধ করতে সেগুলিকে কম আঁচে রান্না করার চেষ্টা করুন।
  • আপনি একটি সাধারণ রেসিপি বানাবার চেষ্টা করতে পারেন, যেখানে ভেন্ডীগুলিকে ভালভাবে পরিষ্কার করে নিয়ে উলম্ব অর্ধে চিরে নিন, এবার সামাণ্য লবণ সহযোগে ছোলার ব্যাসনের প্রলেপ দিয়ে সেগুলিকে ভেজে নিন।এবার এটিকে একটি সুস্বাদু, মুখরোচক ফিঙ্গার ফুড হিসেবে পরিবেশন করা যেতে পারে।
  • এছাড়াও আবার আপনি ভেন্ডীর টুকরোগুলির উপর ডিম এবং পাউরুটির গুঁড়র প্রলেপ দিয়েও ভাজা করতে পারেন।
  • দেহস্থ টক্সিন বা বিষাক্ত পদার্থগুলি দূর করতে, আপনি দুটি ভেন্ডীকে ভালভাবে ধুয়ে নিয়ে থেঁতো করে সগুলিকে সারা রাত ধরে জলের মধ্যে ভিজিয়ে রাখুন। তারপর সেই জলটি পরের দিন সকালে পান করুন।এটি পান করার ফলে আপনার শরীরকে বিষমুক্ত হতে সাহায্য করে যার মধ্যে আবার বৃক্কও অন্তর্ভূক্ত রয়েছে এবং তাছাড়াও আবার এমনকি এটি পান করলে তা আপনার কোলেস্টেরলের মাত্রাকেও নিয়ন্ত্রণে রাখতে সহায়তা করে।
  • আপনি আবার আপনার পছন্দসই ভেন্ডী স্যুপ বা কারীও বানাতে পারেন।

ঢ্যাঁড়শ একটি বিস্ময়কর খাদ্য যা গর্ভাবস্থায় আপনার দেহে কোনও ক্ষতিকারক পার্শ্বিপ্রতিক্রিয়া সৃষ্টি করে না।আপনার এবং আপনার গর্ভস্থ সন্তান, উভয়ের স্বাস্থ্যের উন্নতিসাধনের জন্য আপনি প্রতিদিনই এটি খেতে পারেন।তবে এই সবজি থেকে যদি আপনি কোনওরকম অ্যালার্জি প্রতিক্রিয়া হতে লক্ষ্য করেন কিম্বা এটি খাওয়ার পর যদি কোনওরকম শারীরিক অস্বস্তি বা অসুবিধা বোধ করেন, সেক্ষেত্রে এ ব্যাপারে কোনও গুরুতর সমস্যা আছে কিনা তা নির্ধারণের জন্য আপনার ডাক্তারবাবুর পরামর্শ নেওয়ার পরামর্শই আপনাকে দেওয়া হল।