24 মাসের(2 বছর বয়সী)শিশুর বৃদ্ধি এবং বিকাশ

24 মাসের(2 বছর বয়সী)শিশুর বৃদ্ধি এবং বিকাশ

তাহলে,আপনি অবশেষে আপনার ছোট্টটির জন্মদিনের কেকটিতে দুটি মোমবাতি লাগাতে চলেছেন!আপনি হয়ত আবার এই ‘ভয়াবহ দুই’-এর দুর্নামগ্রস্থ পর্বটির সম্পর্কে একটু ভাবতেও পারেন।এ ব্যাপারে কোনও সন্দেহ নেই যে আপনাকে এখন সম্ভবত বেশ কিছু চ্যালেঞ্জের মুহূর্তের মুখোমুখি হতে হবে কারণ আপনার 2 বছর বয়সী শিশুটি এখন থেকে আরও বেশি স্বাধীন এবং জিদি হয়ে উঠবে।তার দক্ষতার পরিসর বৃদ্ধি পাওয়ার সাথে তার কল্পনাশক্তির উড়ানে সে তার একান্ত নিজস্ব এবং স্বতন্ত্র ছোট্ট প্রাতিম্বিক হয়ে ওঠে।

aniview

আপনার 24 মাস বয়সী শিশুটি সবসময় আপনার প্রত্যাশা মত আচরণ হয়ত করবে না।যখন সে তার মত করে কোনওকিছু করতে পারে না তার মধ্যে হয়ত তীব্র হতাশার উদ্রেক হতে পারে এবং সে রাগে ফেটে পড়তে পারে।কিন্তু একজন অভিভাবক হিসেবে আপনি যদি নমনীয় মনোভাব বজায় রাখেন সেটি আপনার পক্ষেই ভাল হতে পারে।

আপনার 2 বছর বয়সী শিশুর অনর্গল মুখের বুলির সাথে সেখানে কোনও নীরস এবং অনুত্তেজক মুহূর্তই নেই কারণ সে তিন কি চারটি শব্দকে একই সূত্রে বেধে একটি বাক্য গঠণ করার চেষ্টা চালায় যা আপনাকে আমোদিত করে তুলবে।এমনকি আপনি আবার এখন থেকে আপনার ছোট্টটির সাথে বেশ অর্থপূর্ণ আলাপচারিতা চালিয়ে যেতে পারেন।

2 বছর বয়সী শিশুর বিকাশ

2 বছরে প্রবেশ করার সাথে একটি শিশু লক্ষ্যণীয় উন্নয়নমূলক মাইলফলকগুলির রেখাগুলি চিত্রিত করতে পারে।তবে 2 বছর বয়সের এই সকল মাইলফলকগুলি হল কেবল একটি সাধারণ নির্দেশাবলী এবং কোনওভাবেই তা একটি শিশুর বৃদ্ধির ধরণ স্থির করাকে প্রতিষ্ঠিত করে না।প্রতিটি শিশুই তাদের অগ্রগতির ক্ষেত্রে তাদের নিজস্ব সময় নিয়ে থাকে।সুতরাং শিশুরা যদি এই বয়সে তাদের অনুমিত মাইলফলকগুলিকে অর্জন না করে থাকে বলে মনে হয় তবে তা নিয়ে অযথা চিন্তা করে মা-বাবাদের তড়িঘড়ি করে তাদের কিছু করানোর চেষ্টা করা উচিত নয়।

শারীরিক বিকাশ

এই বয়সে,আপনার সন্তান আরও ভালভাবে যোগাযোগ রক্ষা করতে এবং নতুন নতুন নানা ধরণের ক্রিয়াকলাপ আবিষ্কারের তাড়নায় তার সূক্ষ্ম সঞ্চালনা দক্ষতাগুলি প্রয়োগ করার চেষ্টা করতে পারে।বেশিরভাগ মা-বাবাই চিন্তান্বিত হয়ে ওঠেন তাদের সন্তানের ওজন লাভের ব্যাপারে যে, তারা তাদের বয়স অনুপাতে আদর্শ ওজন লাভ করেছে কি না।2 বছরের শিশুদের গড় ওজন মোটামুটি প্রায় 23-28 পাউন্ডের মধ্যে হয়ে থাকতে পারে।2 বছর বয়সী শিশুদের মধ্যে সম্ভবত যে সকল শারীরিক বিকাশগুলি দেখা যেতে পারে সেগুলির মধ্যে রয়েছেঃ

  • এখন সে সহজেই সিঁড়ি দিয়ে ওঠা নামা করতে পারে
  • কোনও রকম সমস্যা ছাড়াই সে হয়ত পিছুমুখে হাঁটতে সমর্থ হয়ে উঠতে পারে।
  • সে এখন তার নিজের একটি পায়ের পাতার উপর ভর দিয়ে দাঁড়িয়ে হয়ত আরও ভালভাবে সামঞ্জস্য রক্ষা করতে পারবে যা তাকে কোনও কিছুর উপর আরোহণ করতে সাহায্য করে।
  • সে সম্ভবত বৃত্ত এবং আরও অন্যান্য আকারগুলিও আঁকতে পারতে পারে।
  • সে এখন তার বুড়ো আঙ্গুল এবং অন্যান্য আঙ্গুলের ফাঁকের মাঝে তার প্রিয় মোম রঙ পেন্সিলটিকে(ক্রেয়ন) ধরে রাখতেও সমর্থ হয়ে ওঠে।
  • একটি ব্রীজ অথবা টাওয়ার বানাবার জন্য সে এখন সফলভাবেই তার খেলনা ব্লকগুলিকে এক জায়গায় জড়ো করতে সক্ষম হয়ে উঠবে।
  • আপনার ছোট্টটি আবার এখন তার বেশ কয়েকটি জামা কাপড়ও নিজে নিজেই পরে ফেলতে পারে সামাণ্য সহযোগিতার দ্বারা।

2 বছর বয়সী শিশুর বিকাশসামাজিক এবং আবেগীয় বিকাশ

আপনার ছোট্টটি হয়ত এখন তার জিনিসগুলিকে তার কোনও বন্ধু বা ভাই-বোনের সাথে ভাগ করে নেওয়ার জন্য প্রস্তুত,যদিও তা সবসময়ের জন্য নয়।তার পাশে খেলায় রত তার কোনও বন্ধু থাকা সত্ত্বেও সে হয়ত এখনও একা একাই খেলতে বেশি পছন্দ করবে।নিম্নলিখিত সামাজিক এবং আবেগীয় বিকাশগুলি একটি 2 বছর বয়সী শিশুর মধ্যে দেখা যেতে পারেঃ

  • এই বয়সের একটি শিশু একটি বড় বাচ্চার আচরণের মত অভিনয় করে এবং একটি ছোট শিশুর সাথে যেভাবে আচরণ করা হয় সেরূপ ব্যবহার প্রত্যাশা করার মাঝে দোদুল্যমান হতে পারে।এই ধরণের আবেগীয় বৈপরীত্য এই বয়সে হওয়া স্বাভাবিক এবং সেটি আরও বাড়তে পারে যদি সে তার রুটিনের মধ্যে কোনও পরিবর্তন করতে চায় অথবা তার প্রতি আপনার আরও কিছুটা মনোযোগ বাড়াতে চায় ও ভালবাসার প্রত্যাশা করে থাকে।
  • আপনার সন্তান এই সময় থেকেই লিঙ্গের পার্থক্যের প্রতি সচেতন হতে শুরু করে।যেমন বলা যাক,একটি ছোট ছেলে তার বাবার হাঁটাচলা কিম্বা জামা-কাপড় পরার মত বিষয়গুলিকে অনুকরণ করতে চায় আর একটি ছোট মেয়ে সেদিকে সম্ভবত তার মা্যের মত সবকিছুই নকল করতে চায় যেমন,সে তার মায়ের প্রিয় লিপস্টিকটিকে নিয়ে নিজের ঠোঁটে লাগানোর চেষ্টায় ব্যস্ত থাকতে পারে।
  • আবার শিশুদের মধ্যে সম লিঙ্গের তাদের ‘আদর্শ ব্যক্তির’ অনুকরণ না করার সম্ভাবনাও অনেক সময় থাকে।এটি করাও একেবারে স্বাভাবিক।শিশুরা স্বভাবতই কৌতুহলী হয়ে থাকে এবং নানা ব্যাপারে তাদের অনুসন্ধিৎসু মনের সাথে নানা ধরণের পরীক্ষা নিরীক্ষা করতে পছন্দ করে।
  • আপনার শিশু এখন হয়ত আপনার থেকে দূরে থাকার বিষয়ে খুব বেশি উদ্বিগ্ন বোধ নাও করতে পারে।
  • এই বয়সে আপনার শিশুর মধ্যে অবাধ্যতা এবং আবেগীয় বিস্ফোরণের কয়েকটি পর্ব চলতে পারে।

জ্ঞানীয় এবং ভাষার বিকাশ

এই বয়সের মধ্যে আপনার শিশু হয়ত তার পরিচিত কিছু জিনিসকে কোনও বইয়ের মধ্যে ছবিতে দেখতে পেয়ে নির্দেশ করতে সক্ষম হতে পারে,যেমন বেলুন,কুকুর,বল ইত্যাদি।কিন্তু সে হয়ত এখনও বিমূর্ত কোনও ধারণার সাথে সম্পর্কিত হতে পারবে না।জ্ঞানীয় এবং ভাষা বিকাশের বৈশিষ্ট্যগুলির কয়েকটি হতে পারেঃ

  • আপনার শিশুটি হয়ত তার নিজের জিনিসগুলিকে বেছে নিতে এবং সেগুলিকে শ্রেণীবিন্যাসে বিভাজিত করতে পছন্দ করে থাকতে পারে।
  • সে একটি বাক্যকে দুবার ব্যবহার করার জন্য কয়েকটি বাক্যাংশকে ব্যবহার করা শুরু করতে পারে
  • বিভিন্ন ক্ষেত্রে তার পৃথক পরিচয়ের ব্যাপারে তার মধ্যে সচেতনতা গড়ে ওঠার সাথে সাথে সে হয়ত তার পছন্দ ও অপছন্দের ব্যাপারগুলিকেও বলতে পারবে।
  • সাধারণ নির্দেশগুলিকে সে বুঝতে সক্ষম হবে এবং সেগুলিকে সে অনুসরণ করতে পারবে
  • এই বয়সে আপনি আপনার ছোট্টটির মুখ থেকে হয়ত অসংখ্যবার “কেন” প্রশ্নটি শুনতে পারেন।সেটি সে এমন কিছু সময়ে বলতে পারে যখন সে কোনও কিছুর প্রকৃত ব্যাখ্যাটি চেয়ে থাকে।আর অন্যান্য সময়ে সে এটিকে খুব স্বাভাবিকভাবেই বলে কারণ সে জানে না যে কীভাবে তার কৌতুহলকে প্রকাশ করতে হবে।
  • আপনার ছোট্টটি হয়ত এই সময় ‘তাড়াতাড়ি’,’দেরী’;’ভাল’,’খারাপ’-এর ধারণাগুলি সম্পর্কে বুঝতে শুরু করতে পারে।

আচার আচরণ

এই বয়সে আপনার সন্তানের খুব জেদী হয়ে ওঠার সম্ভাবনা থাকতে পারে। সে তার জিনিসগুলিকে একটি বিশেষ পদ্ধতিতে চাইতে পারে এবং সেগুলি সেই অনুযায়ী না হলে হতাশ হয়ে পড়তে পারে।সময়ে সময়ে আপনাকে কিছু ঘ্যানঘ্যান বা প্যানপ্যানের মুখোমুখি পড়তে হতে পারে।সে হয়ত আবার কোনও জিনিসকে প্রত্যাখ্যান করার ক্ষেত্রে বা তাকে না বলার ব্যাপারটিকে সদয় ভাবে মেনে নিতে নাও পারে।

মাঝে মধ্যে আবার শিশুদের ঘ্যানঘ্যান করতে দেখা যেতে পারে তাদের ক্লান্ত হয়ে ওঠার জন্য কিম্বা খিদে পাওয়ার কারণে।এই দুটি সমস্যার সামাল দিতে পারলেই হয়ত তার ঘ্যানঘ্যানির সমস্যার সমাধান করা যাবে।কখনও কখনও শিশুরা আবার কিছু মানসিক চাপ অনুভব করতে পারে অথবা আপনার মনোযোগ আকর্ষণ করতে চাইতে পারে।সাধারণত তাদের জড়িয়ে ধরে কিম্বা সান্ত্বনা দেওয়ার মাধ্যমেই তাদের এই ঘ্যানঘ্যানি থামানো যেতে পারে।এছাড়াও আবার আপনি আপনার ছোট্টোটির চিত্ত বিক্ষেপ ঘটাতে পারেন তাকে কিছু আকর্ষণীয় খেলনা প্রদানের দ্বারা কিম্বা কোনও উত্তেজনাপূর্ণ ক্রিয়াকলাপের সাথে তাকে ব্যস্ত রাখতে পারেন যা তার মনকে হয়ত সেদিক থেকে সরিয়ে অন্যমনস্ক করে তুলবে।

আচার আচরণ

2 বছর বয়সে একটি টলটলায়নকারী সাধারণত তার মা-বাবার প্রভাব এবং কোনও জিনিসকে নিয়ন্ত্রণ করার ক্ষেত্রে তার ক্ষমতার ব্যাপ্তি কতটা তা পরীক্ষা করার চেষ্টা করে।সুতরাং তার ঘ্যানঘ্যান শুনে সবসময় তাকে সবকিছু দিয়ে দেওয়াটা কোনও ভাল একটা ধারণা নাও হতে পারে।তাই এই ধরণের জটিল পরিস্থিতির সামাল দেওয়ার ক্ষেত্রে চেষ্টা করুন ধীর,স্থির,শান্ত অথচ দৃঢ় হতে।যদি তার এই ঘ্যান ঘ্যান করে জেদ করাটা অব্যাহত রয়ে যায় তবে তা উপেক্ষা করাই হয়ত এক্ষেত্রে সম্পূর্ণরূপে কাজ করতে পারে।

খাদ্য এবং পুষ্টি

2 বছরের একটি শিশুর জন্য তার খাদ্যটি মজাদার হয়ে উঠতে পারে।এই সময়ের মধ্যে আপনার ছোট্টটি হয়ত তার পরিবারের সকলের সাথে একসাথে বসে খাওয়ায় যোগদান করবে।চামচ,ছুরি,কাঁটা চামচ ব্যবহারের দ্বারা নিজে হাতে করে খাওয়ার সম্ভাবনাটি আপনার শিশুটির কছে বেশ রোমাঞ্চকর হয়ে ওঠে।আর এর ফলে আশে পাশের সমগ্র জায়গাটিতেই ভীষণভাবে ময়লা ও অপরিষ্কার হয়ে ওঠাটি আপনি আশা করতেই পারেন কিন্তু তাকে সেটি করতে দিন।

আপনার সন্তানের পেষক দাঁতগুলি এই সময় উঠতে শুরু করে যার মানে হল তার চিবানোর দক্ষতা আরও ভাল হওয়ার সম্ভাবনা থাকে।এই সময় আপনার শিশুর মধ্যে হয়ত খামখেয়ালীভাবে ভ্রমণরত অবস্থায় অস্থির প্রকৃতিতে খাওয়ার অভ্যাসটি বেড়ে উঠতে পারে যার অর্থ সে হয়ত একবার খাওয়ার সময় অনেকটা বেশি খাবার খেয়ে ফেলতে পারে আর তার পরের বারই হয়ত প্রায় কিছুই খায় না বললেই চলে।যখন আপনার ছোট্টটি তার খাওয়ার প্রতি কোনও উৎসাহই দেখাবে না তখন তাকে জর পূর্বক খাওয়ানো থেকে বিরিত থাকুন।খাওয়ার মাঝের ব্যবধানগুলিতে ফল অথবা চীজের টুকরোর মত কিছু হালকা ও স্বাস্থ্যকর জলখাবার আপনার ছোট্ট শিশুটিকে দেওয়া বেশ সহায়ক প্রমাণিত হয়ে থাকে।এছাড়াও আপনি আবার তাকে গাজর,শসার টুকরো এবং টমেটোর একটি স্লাইজের মত কিছু কাঁচা সবজিগুলিও দিতে পারেন।

আপনার ছোট্টটিকে খাবারের ব্যাপারে যদি একজন খুঁতখুঁতে ভক্ষণকারী বলে মনে হয় সেক্ষেত্রে তার শিশু খাদ্যের সাথে আরও নতুন নতুন খাদ্যগুলির উদ্ভাবন করুন। উদাহরণ হিসেবে বলা যাক,তাকে কাঁচা সবজিগুলিকে যেমন গাজর,শসার টুকরোগুলিকে একটি পুষ্টিকর ডিপের(টমেটো,লেবুকে পিঁষে নিয়ে তার সাথে সামাণ্য বিট নুন যোগ করে ঘরে প্রস্তুত করে নিতে পারেন)মধ্যে ডুবিয়ে খেতে দিন,তার জন্য একটি রোল বানিয়ে দিতে তাতে একটি সুস্বাদু স্প্রেড ব্যবহার করুন,দুধ,ফল এবং দই দিয়ে তৈরী একটি লোভনীয় স্মুদি বা সরবত বিশেষ তাকে দিতে পারেন,স্যাণ্ডুইচটিকে আরও আকর্ষণীয় করে তুলতে সেটিকে বিভিন্ন পশু বা ফুলের আকার দিতে একটি কুকিজ কাটার ব্যবহার করুন।

ঘুমানো

এই সময়ে আপনার ছোট্টটি হয়ত তার শিশু শয্যা থেকে তার নিজস্ব একটি বড়দের বিছানার যাওয়ার জন্য প্রস্তুত হয়ে উঠবে।তবে এই রূপান্তরটি হতে পারে ধীরে ধীরে এবং নির্দিষ্ট পর্যায়ের মধ্যে।এই পরিবর্তনের সাথে নিজেকে মানিয়ে নিতে আপনার শিশু কিছুটা সময় নিতে পারে।সেটি সম্পর্কে একটা ধারণা তৈরী করে দেওয়ার জন্য আপনি ছোট্টটিকে দিনের বেলায় তার বিছানাটিতে ঘুম পাড়ানোর অভ্যাস শুরু করতে পারেন।তার বিছানাটিকে পরিপাটি করে তোলার কাজে তাকে নিযুক্ত করুন তার পছন্দের চাদরটিকে বিছানার উপর পেতে দিয়ে,তার প্রিয় কিছু খেলনা পত্র সেই বিছানার উপর তাকে রাখতে বলার মাধ্যমে।

আপনার শিশুটি তার শোয়ার ঘরের বিছানায় শুয়ে ঘুমিয়ে থাকার সময় আপনি যদি তার সুরক্ষার বিষয়ে উদ্বিগ্ন হন,আপনি তার শোয়ার ঘরের দরজার সামনে ছোট একটি সিঁড়ির গেট স্থাপন করতে পারেন।আপনার ছোট্টটি যাতে তার বিছানা থেকে গড়িয়ে পড়ে না যায় তার জন্য আপনি আবার তার বিছানার চারধারে একটি বেড গার্ড অথবা সুরক্ষা রেলিংও লাগিয়ে নিতে পারেন।

খেলাধূলা এবং ক্রিয়াকলাপ

যে সকল ক্রিয়াকলাপগুলির সাথে প্রচুর পরিমাণে কল্পিত খেলা,ভাষা এবং মিথোষ্ক্রিয়া অন্তর্ভূক্ত থাকে সেগুলি আপনার শিশুর সার্বিক বিকাশের জন্য অত্যন্ত উপকারী বলে প্রমাণিত।সাইমন বলেছেন,খেলনা লুকিয়ে ফেলা এবং তা অনুধাবন করা,খেলনা পুতুলগুলিকে সাজসজ্জা করানো,বল লুফে নেওয়া ইত্যাদির মত ক্রিয়াকলাপগুলি কেবল বাচ্চাদের মনোরঞ্জনই করে না এটি আবার তাদের বিভিন্ন দক্ষতা অর্জন শিখনেও সাহায্য করে।

খেলাধূলা এবং ক্রিয়াকলাপ

আপনার সন্তানের শক্তিকে একটি নির্দিষ্ট পথে চালিত করতে তাকে বিভিন্ন আউটডোর গেমগুলির সাথে নিযুক্ত করুন,তাকে প্রায়শই পার্কে নয়ে যান এবং আশেপাশে নিয়ে ঘুরতে বেরোন।এ পথে সে হয়ত বিভিন্ন আকর্ষণীয় বিষয়গুলি পার হয়ে আসতে পারে যা তার সচেতনতার মাত্রাকে আরও বেশি প্রশস্ত করে তোলে।

আপনি যদি আপনার ছোট্টটিকে স্বেচ্ছাপূর্বক আরও বেশি করে কোনও কিছু ভাগ করে নেওয়ার ক্ষেত্রে উৎসাহিত করে তুলতে চান তবে তার সাথে ‘পালাক্রমে বদলী করা’-এই ধারণাটির সাথে পরিচয় করাতে পারেন।যেমন ধরুন, আপনি কোনও একটি ছবিকে একসাথে রঙ করার প্রস্তাব দিতে পারেন যেখানে,প্রথমে এটিকে তাকেই রঙ করার পালা দিন এবং তারপ[অর পালা বদল করে এইভাবে আবার এর বিপরীতটিও করতে বলুন অর্থাৎ আপনার সোনাকে এবার বলুন যে, সেটি আপনাকে আবার রঙ করতে দিতে।এই বয়সে আপনার ছোট্টটি আবার নাচ-গান করার সাথে সাথে লাফ-ঝাঁপের মত ক্রিয়াকলাপগুলিও করতে পছন্দ করবে।

মা-বাবাদের জন্য পরামর্শ

এখানে আপনার শিশুর যত্ন এবং বিকাশ সম্পর্কে কয়েকটি পরামর্শ দেওয়া হলঃ

  • আপনার ছোট্টটি হয়ত এখন পটি প্রশিক্ষণের চেষ্টা করতে প্রস্তুত হতে পারে।তার গতি সেট করতে এবং ধীরে ধীরে ধারণাটির প্রয়াস করতে তাকে সাহায্য করার মাধ্যমে সম্মতি দিন।
  • আপনার টলমল করে হেঁটে চলা ছোট্টটির সাথে অনবরতভাবে আলাপচারিতা বজায় রাখাটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ।এটি তার শব্দ ভাণ্ডার বৃদ্ধি করতে এবং ভাষার উপর তার ভালভাবে দক্ষতা বিকাশের ক্ষেত্রে সহায়তা করবে।
  • আপনার সন্তানের জন্য একটি স্বাস্থ্যকর ডায়েট বজায় রাখুন।বিভিন্ন ধরণের নতুন নতুন খাবারগুলির সাথে তার পরিচয় করান।যেমন বলা যাক,আপনার ছোট্টটিকে যদি সাধারণ ইডলি দিয়ে থাকেন তবে তার স্বাদের একটু পরিবর্তন করতে আপনি তাকে ইডলির সাথে সবজি অথবা সুজির ইডলি দিতে পারেন।
  • যদি আপনার ছোট্টটি দুধ খেতে পছন্দ না করে আপনি বিকল্পরূপে তাকে মাছ,দই,চীজ দিতে পারেন।
  • মাঝে মধ্যে এক আধবার ক্রুদ্ধ হয়ে ওঠাটা স্বাভাবিক তবে চেষ্টা করুন শান্ত থাকতে এবং আপনার শিশুর সাথে ধৈর্যশীল হয়ে উঠুন।আপনার নিজেকে শান্ত রাখাটা বরং এই কঠিণ পরিস্থিতি সমাধানে আপনাকে দ্রুত সাহায্য করতে পারে।

মা-বাবাদের জন্য পরামর্শ

যদি প্রয়োজন হয় একজন ডাক্তারের পরামর্শ গ্রহণ করুন

আপনি আপনার সন্তানের ওজন এবং উচ্চতা নিয়মিত ব্যবধানের ভিত্তিতে পরিমাপের জন্য ডাক্তার দেখানোর একটি সময়সূচী তৈরী করতে পারেন।আপনার সন্তানের বৃদ্ধি এবং খাদ্য সংক্রান্ত কোনও রকম সমস্যাজনিত উদ্বেগ যদি আপনার মধ্যে থেকে থাকে আপনি কোনওরকম দ্বিধা-দ্বন্দ ছাড়াই মুক্ত চিত্তে আপনার ডাক্তারবাবুর সাথে আলোচনা করতে পারেন।না জিজ্ঞাসা করে পরে অনুতাপ করার থেকে মনে থাকা যেকোনও সন্দেহ সম্পর্কে স্পষ্ট হয়ে নেওয়াটা সবসময়ের জন্যই শ্রেষ্ঠ ধারণা।

‘ভয়াবহ দুই’ একটি উত্তেজনাপূর্ণময় পর্যায় হয়ে উঠতে পারে।আপনার 2 বছর বয়সী শিশুটি তার চারপাশের বিশ্বকে সক্রিয়ভাবে অণ্বেষণ করার কারণে তার মধ্যে অগ্রগতির ক্রিয়াগুলি অবিরত হয়ে চলে।অভিভাবক হিসেবে বিভিন্ন ক্রিয়াকলাপগুলি সম্পাদনের ক্ষেত্রে প্রচুর ভালবাসা এবং স্নেহের পাশাপাশি আপনি তাকে সঠিক সমর্থন এবং উৎসাহ প্রদান করুন।